চাঁপাইনবাবগঞ্জের বিনায় কৃষকদের প্রশিক্ষণ

আপডেট: December 29, 2020, 9:08 pm

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি:


চাঁপাইনবাবগঞ্জের বিনা উপকেন্দ্রে পানি সাশ্রয়ী ও লাভ জনক শস্য পরিক্রমা বাছাইকরণ শীর্ষক কৃষক প্রশিক্ষণ ২০২০ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাংলাদেশ পরমাণু কৃষি গবেষণা ইন্সটিটিউট’র কৃষি প্রকৌশল বিভাগ ও বিনা উপকেন্দ্র চাঁপাইনবাবগঞ্জ কর্তৃক পরিচালিত গবেষণার অংশ হিসেবে উক্ত কৃষক প্রশিক্ষণ বিনার ঊর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ও উপকেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ড. মো. হাসানুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। গতকাল মঙ্গলবার বেলা ১১ টায় ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে প্রশিক্ষনের উদ্বোধন করেন, অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বাংলাদেশ পরমাণু কৃষি গবেষণা ইন্সটিটিউটের (বিনা) মহা-পরিচালক ড. মির্জা মোফাজ্জল ইসলাম।
বরেন্দ্র অঞ্চলে ভূ-গর্ভস্থ পানির স্তর ক্রমান্বয়ে নিম্নগামী হওয়া ও আবহাওয়ার পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় এই এলাকায় বিনা কর্তৃক গবেষণা কার্যক্রম বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিলের (বিএআরসি) এন.এ.টি.পি. প্রকল্পের চইজএ-০০২ উপ-প্রকল্পের অর্থায়নে গবেষণা কার্যক্রম চলছে। গবেষকরা আরও জানান, বিশেষ করে বরেন্দ্র অঞ্চলে ভূ-গর্ভস্থ পানির স্তর দ্রুত নেমে যাচ্ছে। এই অঞ্চলে বৃষ্টিপাত কম হওয়ায় যে পরিমাণ পানি পাম্পের সাহায্যে উত্তোলন হচ্ছে- সেই পরিমাণ পানি ভূ-গর্ভ স্তরে পুনরায় ভরাট বা রিচার্জ হচ্ছে না। ফলে ভবিষ্যতে পানির অভাবে পরিবেশের বিপর্যয় হতে পারে। এ অবস্থা চলতে থাকলে এমন এক সময় আসবে সেই সময় গভীর নলকূপের সাহায্যেও আর পানি পাওয়া যাবে না। বিগত তিন বছরের গবেষণায় লক্ষ্য করা যায়, বোরো ধানের পরিবর্তে রবি ফসল সরিষা, মসুর ও গম এবং আউশ ধান চাষ করলে সেচের পানির পরিমাণ কম লাগায় বছরান্তে ফলনের পাশাপাশি মুনাফাও অর্জন বেশী হয়। প্রকল্পের কারিগরী তথ্য উপস্থাপন করেন বিনা, ময়মনসিংহ’র কৃষি প্রকৌশল বিভাগের বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা পার্থ বিশ্বাস। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিনা উপকেন্দ্র, চাঁপাইনবাবগঞ্জের বৈজ্ঞানিক কর্মকতা মো. ফরহাদ হোসেন এবং পরীক্ষণ কর্মকর্তা মো. আনোয়ারুল ইসলাম প্রমুখ।