চাঁপাইনবাবগঞ্জে যুবলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

আপডেট: নভেম্বর ১১, ২০২১, ৫:১৩ অপরাহ্ণ


চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি :


বঙ্গবন্ধুর আদর্শে গড়া অসাম্প্রদায়িক, গণতান্ত্রিক ও শোষণমুক্ত বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার সংগ্রামে যুবসমাজকে সম্পৃক্ত করার লক্ষ্য নিয়েই প্রতিষ্ঠিত হয় এ সংগঠন। চার দশকের বেশি সময় ধরে দীর্ঘ লড়াই-সংগ্রাম ও হাজারো নেতাকর্মীর আত্মত্যাগের মাধ্যমে যুবলীগ আজ দেশের সর্ববৃহৎ যুব সংগঠনে পরিণত হয়েছে। তারই ধারাবাহিকতায় বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যদিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের ৪৯ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল পৌনে ১০ টায় জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়। পরে, বেলা ১১টায় নবাবগঞ্জ সরকারি কলেজ চত্বর থেকে যুবলীগের বিভিন্নস্তরের নেতা-কর্মীদের অংশগ্রহণে এক বর্ণাঢ্য র‌্যালী বের করা হয়। র‌্যালির নেতৃত্ব দেন,

জেলা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক সাবেক এমপি আব্দুল ওদুদ। র‌্যালিটি শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক দক্ষিণ করে বঙ্গবন্ধু মুক্তমঞ্চে গিয়ে শেষ হয়। এসময় জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর প্রতিকৃতিতে পু®পস্তবক অর্পণ করেন নেতৃবৃন্দ। পরে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ রুহুল আমীন, যুগ্ম-সম্পাদক মোঃ শরিফুল আলম, জেলা আ.লীগের সদস্য ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভার মেয়র প্রার্থী মো. মোখলেসুর রহমান, যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সম্পাদক কামরুল হাসান লিংকন, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ মো. আব্দুল জলিল, জেলা কৃষক লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট মোঃ আব্দুস সামাদ, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক লেনিন প্রামানিক,

জেলা মহিলা লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট ইয়াসমিন সুলতানা রুমা, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আব্দুল আওয়াল জোহা, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ডা. সাইদ জামান আনন্দ প্রমুখ। শেষভাগে অনুষ্ঠানের সভাপতি জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আমানুল্লাহ বাবু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও নৌকা প্রতীকের বিরুদ্ধে বক্তব্য দেয়ার সময় লাঞ্ছিত হন। ভুল বুঝাবুঝির একপর্যায়ে পরে স্থানীয় নেতৃবৃন্দের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত করা হয় এবং শেষে কেক কাটার মধ্যদিয়ে অনুষ্ঠান সমাপ্ত হয়।