চাল মজুদের দায়ে বড়াইগ্রামে দুই অটোরাইস মিলে এক লাখ টাকা জরিমানা

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৭, ২০১৭, ১২:২৫ পূর্বাহ্ণ

বড়াইগ্রাম প্রতিনিধি


নাটোরের বড়াইগ্রামে অতিরিক্ত চাল মজুদ, চালের বস্তায় মূল্য না লিখাসহ নানা অনিয়মের দায়ে রশিদ অটোরাইস মিল ও গাজী অটোরাইস মিলকে এক লাখ টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। গতকাল শনিবার বিকেলে নাটোরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট রাজ্জাকুল ইসলাম ওই আদালত পরিচালনা করেন। এসময় র‌্যাব-৫’র নাটোর ক্যাম্পের এএসপি শেখ আনোয়ার হোসেনের নেতৃত্বে দুই প্লাটুন র‌্যাব সদস্য উপস্থিত ছিলেন।
এএসপি শেখ আনোয়ার হোসেন জানান, অতিরিক্ত চাল মজুদের অপরাধে বড়াইগ্রাম উপজেলার গড়মাটিতে রশিদ অটোরাইস মিল এবং বনপাড়ায় গাজী অটোরাইস মিলে অভিযান চালায় ভ্রাম্যমাণ আদালত। এসময় অতিরিক্ত চাল মজুদ, চালের বস্তায় মূল্য ও উৎপাদনের তারিখ না লেখা এবং চটের বস্তা ব্যবহার না করাসহ বিভিন্ন অনিয়মের দায়ে উভয় রাইস মিলকে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়।
রশিদ অটোরাইস মিলের নির্বাহী পরিচালক জহির উদ্দিন এবং গাজী অটোরাইস মিলের পরিচালক মাহাবুব হোসেন উভয়ে জরিমানার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, তাদের কাছে মিলে চাল মজুদ ছিল না। তারা বাজারজাত করার জন্য ট্রাক লোড করার অপেক্ষায় চাল সংরক্ষণ করছিলেন। তবে বস্তার গায়ে মেয়াদ এবং মূল্য লেখা ছিল না বলে স্বীকার করেন তারা।
এ বিষয়ে নাটোরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট রাজ্জাকুল ইসলাম জানান, চাল মজুদ, পাটের বস্তা ব্যবহার, বস্তার গায়ে মূল্য ও উৎপাদন তারিখ লেখাসহ নানা বিষয়ে চালকল গুলোতে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত হচ্ছে। এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানান তিনি।