চ্যাপেলের মন্তব্যের জবাবে দিলেন মিসবাহ ও শোয়েব আখতার

আপডেট: জানুয়ারি ১৫, ২০১৭, ১২:০১ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক



ইয়ান চ্যাপেলের মতো একজন ক্রিকেট-বোদ্ধা এমন মন্তব্য কীভাবে করেন, ভেবে পাচ্ছেন না পাকিস্তানের টেস্ট অধিনায়ক মিসবাহ-উল হক। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার ওয়েবসাইটে লেখা এক কলামে মিসবাহ চ্যাপেলকে এক হাত নিয়েছেন। বলেছেন, পাকিস্তানের পারফরম্যান্স নিয়ে ‘বড়’ চ্যাপেল যে মন্তব্য করেছেন, তা তাঁর ক্রিকেট খেলা ও দেখার বিশাল অভিজ্ঞতার সঙ্গে ঠিক মানানসই নয়। কড়া জবাব দিয়েছেন শোয়েব আখতারও।
অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজে হোয়াইটওয়াশ হওয়ার পর ইয়ান বেশ কড়া ভাষাতেই পাকিস্তান ক্রিকেট দলের সমালোচনা করেন। বলেন, পাকিস্তান যদি নিজেদের ক্রিকেটের মান বাড়াতে না পারে, তাহলে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার উচিত তাদের সফরে না ডাকা।
চ্যাপেলের মন্তব্যের জবাবে মিসবাহ লিখেছেন, ‘উপমহাদেশে যদি অস্ট্রেলিয়া বারবার হোয়াইটওয়াশ হতে থাকে, তাহলে কি ইয়ান চ্যাপেলের মন্তব্য অনুযায়ী আমরা বলতে পারি, অস্ট্রেলিয়ার উপমহাদেশে যাওয়াই উচিত নয়!’
পাকিস্তানের টেস্ট অধিনায়কের প্রশ্ন, ‘সাত বছর পর আমরা অস্ট্রেলিয়া সফর করছি। ২০০৯-১০ সালে সর্বশেষ অস্ট্রেলিয়া সফর করেছি। সাত বছর পর পর সফর হলে আমরা কীভাবে উন্নতি করব? পরের বার আমরা যখন অস্ট্রেলিয়ায় টেস্ট খেলতে আসব, তখন দলে ৮-৯ জন নতুন খেলোয়াড় থাকবে। এবারের দলটির মাত্র ২-৩ জন খেলোয়াড় সেখানে থাকতে পারে। আমার মনে হয় দুই সফরের মাঝখানে অনেক বেশি বিরতি হয়ে যাচ্ছে। আমরা তো অস্ট্রেলিয়াতে কালে-ভাদ্রে আসি। যদি অস্ট্রেলিয়া উপমহাদেশে না যায়, উপমহাদেশের দলগুলো যদি এখানে না আসে, তাহলে কীভাবে উন্নতি হবে।’
ব্রিসবেনের প্রথম টেস্টে হারলেও দারুণ লড়েছিল পাকিস্তান। কিন্তু মেলবোর্ন ও সিডনির পরের দুটি টেস্টে পারফরম্যান্স হয়েছে যাচ্ছেতাই। অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে এই সফর নিয়ে টানা ১২টি টেস্টে হারল পাকিস্তান। চ্যাপেল এরপর সমালোচনার চাবুক ছোড়েন পাকিস্তান ও মিসবাহকে উদ্দেশ করে।
মিসবাহর মতে এবারের অস্ট্রেলিয়া সফর ‘হতাশাজনক’ এবং পাকিস্তান ক্রিকেটের জন্য বড়সড় ধাক্কাই। কিন্তু এর মানে এই নয় যে সফরের জন্য ডাকাই যাবে না, ‘নিয়মিত সফর না করলে বিদেশের মাটিতে সাফল্য পাওয়া খুবই কঠিন।’
চ্যাপেলের মন্তব্যে কড়া প্রতিক্রিয়া হয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেটেও। সাবেক ফাস্ট বোলার শোয়েব আখতার চ্যাপেলের মন্তব্যের জবাবে বলেছেন, ‘মানছি, অস্ট্রেলিয়া সফরে পাকিস্তান খুব খারাপ করেছে। লড়াইয়ের মনোভাবটারই অভাব ছিল খেলোয়াড়দের মধ্যে। কিন্তু অস্ট্রেলিয়া সফরে না যাওয়া তো এর প্রতিকার হতে পারে না। ইংল্যান্ড কোনো দিন বিশ্বকাপ ক্রিকেটে চ্যাম্পিয়ন হয় নি। তাই বলে কি তারা বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করছে না!’ সূত্র: ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া,প্রথম আলো অনলাইন।