জনশুমারি ও গৃহগণনা কার্যক্রম পরিচালনায় রাজশাহী সিটি শুমারি কমিটির সভা অনুষ্ঠিত

আপডেট: মে ৩১, ২০২২, ৯:৫২ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক:


আগামী ১৫-২১ জুন দেশব্যাপী জনশুমারি ও গৃহগণনা অনুষ্ঠিত হবে। রাজশাহী মহানগরীতে জনশুমারি ও ও গৃহগণনা এ কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার লক্ষ্যে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন শুমারি কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার (৩১ মে) দুপুরে নগরভবনের সিটি হল সভাকক্ষে বিভাগীয় ও জেলা পরিসংখ্যান কার্যালয়, রাজশাহী আয়োজিত সভায় সভাপতিত্ব করেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে রাসিক মেয়র বলেন, জনশুমারি আমাদের কাছে নতুন কিছু না। প্রতি দশবছর পর পর এই শুমারি কাজটি হয়ে থাকে। এবারের নতুন বিষয় হলো প্রথম ডিজিটাল জনশুমারি। রাজশাহী মহানগরীর সকল নাগরিকদের নির্ভূল তথ্য প্রদান করতে হবে। পরিকল্পিত উন্নয়নে অংশ নিতে জনশুমারিতে তথ্য প্রদান প্রয়োজন। ওয়ার্ড পর্যায়ে নাগরিকদের তথ্য সংক্রান্ত বিষয়ে কাউন্সিলরদের আন্তরিকভাবে সহযোগিতার অনুরোধ জানান মেয়র।

তিনি বলেন, বাংলাদেশে এ পর্যন্ত ৫ বার আদমশুমারি ও গৃহগণনা অনুষ্ঠিত হয়। ১৯৭৪ সালে প্রথম আদমশুমারি কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুুজিবুর রহমান। উদ্বোধনকালে তিনি বলেছিলেন যথাযথ উন্নয়নের জন্য নির্ভূল পরিসংখ্যান চাই’।

২০১১ সালে সর্বশেষ আদমশুমারি অনুষ্ঠিত হয়েছে।এরই ধারাবাহিকতায় আগামী ১৫-২১ জুন দেশব্যাপী জনশুমারি ও গৃহগণনা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। রাজশাহী মহানগরীতে সরকারি এ কার্যক্রম সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে বাস্তবায়ণে মহানগরবাসীসহ সকলকে সকলকে আন্তরিক হবার আহবান জানান মেয়র।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন রাসিকের প্যানেল মেয়র-২ ও ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রজব আলী, রাজশাহী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর আব্দুল খালেক, সচিব মোঃ মশিউর রহমান। বিভাগীয় পরিসংখ্যান কার্যালয় রাজশাহীর যুগ্ম পরিচালক এস.এম আনিসুজ্জামান সার্বিক তথ্য উপস্থাপন করেন।

সঞ্চালনায় ছিলেন জেলা পরিসংখ্যান কার্যালয় রাজশাহীর উপপরিচালক কাজল রেখা। সভায় রাসিকের কাউন্সিলর, কর্মকর্তা, সিটি শুমারি সমন্বয়কারী আসিফ ইকবালসহ বিভিন্ন সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।