টাইমস্ হায়ার এডুকেশন ইমপ্যাক্ট র‌্যাঙ্কিং-এ বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়

আপডেট: জুন ১৩, ২০২৪, ১১:৩৩ অপরাহ্ণ

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি:


যুক্তরাজ্যভিত্তিক শিক্ষা সাময়িকী টাইমস্ হায়ার এডুকেশন ইমপ্যাক্ট র‌্যাঙ্কিং ২০২৪ এ স্থান পেয়েছে বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়। বুধবার (১২ জুন) এই র‌্যাঙ্কিং তালিকা প্রকাশ করেছে প্রতিষ্ঠানটি।

বিশ্বের ১২৫টি দেশের ২১৫২টি বিশ্ববিদ্যালয়কে এবারের ইমপ্যাক্ট র‌্যাংকিং-এ অন্তর্ভুক্ত করা হয়। র‌্যাংকিং-এ বাংলাদেশের ৮টি সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ও ১১টি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়সহ মোট ১৯ টি বিশ্ববিদ্যালয় স্থান পেয়েছে। এতে দেশের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে ৯ম অবস্থানে রয়েছে বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়।

টাইমস হায়ার এডুকেশন ১৭টি নির্দিষ্ট ক্যাটাগরির উপর ভিত্তি করে র‌্যাঙ্কিংটি প্রকাশ করেছে। এর মধ্যে রয়েছে, নো পোভার্টি, জিরো হাঙ্গার, গুড হেলথ এন্ড ওয়েলবিং, রিকোয়ার্ড ইনেকুয়ালিটিস, কোয়ালিটি এডুকেশন, জেন্ডার ইকুয়ালিটি, ক্লিন ওয়াটার এন্ড স্যানিটেশন,, সাসটেইনেবল সিটিজ এন্ড কমিউনিটিস, রেসপন্সিবল কনসামশান এন্ড প্রোডাকশন, অফ.ডল এন্ড ক্লিন এনার্জি, ডিসেন্ট ওয়ার্ক অ্যান্ড ইকোনমিক গ্রোথ ইন্ডস্ট্রি ইনোভেশন এন্ড ইনফ্রাস্ট্রাকচার ক্লাইমেট চেঞ্জ, লাইফ বিলোওয়াটার, লাইফ অন ল্যান্ড, পিস, জাস্টিস অ্যান্ড স্ট্রং ইন্সটিটিউশন্স ও পার্টনারশিপ ফর দ্যা গোলস্।

বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় প্রথম বারের মতো ইমপ্যাক্ট র‌্যাংকিং-এ স্থান পাওয়ায় সকলকে ধন্যবাদ ও অভিনন্দন জানিয়েছেন বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রাস্টি বোর্ডের সম্মানিত চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান খান।

এ বিষয়ে বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য (ভারপ্রাপ্ত) আনন্দ কুমার সাহা বলেন, ‘টাইমস হায়ার এডুকেশন ইমপ্যাক্ট র‌্যাঙ্কিং ২০২৪ এ বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের এ অর্জনে আমরা আনন্দিত। পূর্বেও আমরা টাইমস হায়ার এডুকেশন (টিএইচই) কর্তৃক প্রকাশিত বিশ্বসেরা বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর তালিকায় জায়গা অর্জন করেছি। ঢাকার বাইরে অবস্থান করেও একটি বিশ্ববিদ্যালয় র‌্যাংকিং-এ স্থান করতে পারে এটি তার প্রমাণ।

বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়’র সেন্টার ফর ইন্টারডিসিপ্লিনারি রিসার্চের ডিরেক্টর প্রফেসর ড. এ.এইচ.এম. রহমতুল্লাহ ইমন বলেন, ‘আমরা বিশ্বাস করি, ভবিষ্যতে বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যা’য় র‌্যাংকিং-এ আরো উপরে স্থান পাবে। আগামীতে আরও উন্নতি করতে সবাইকে সঙ্গে নিয়ে কাজ করব আমরা।’

উল্লেখ্য বিভিন্ন ধরনের এসডিজিতে উৎকর্ষ সাধনের মাধ্যমে র‌্যাংকিং-এ স্থান পাওয়া বিশ্ববিদ্যালয়গুলো পরিবেশগত স্থায়িত্ব, সামাজিক অন্তর্ভুক্তি, অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি এবং অংশীদারিত্বসহ বিশ্বের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ চ্যালেঞ্জগুলো মোকাবেলায় তাদের কর্মকাণ্ড করে থাকে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Exit mobile version