টিকা নিতে রামেক হাসপাতালে উপচেপড়া ভিড়, বাড়ানো হচ্ছে বুথ

আপডেট: এপ্রিল ১০, ২০২১, ৯:০৪ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক :


বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল) থেকে রাজশাহীতে করোনাভাইরাসের টিকার দ্বিতীয় ডোজ দেওয়া শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার এ কার্যক্রম শুরু হয়। যাঁরা ৭ ও ৮ ফেব্রুয়ারি বা তার আগে টিকা নিয়েছেন তারা আজ দ্বিতীয় ডোজ পাবেন। এ জন্য দুই দিন আগে থেকে মোবাইল নম্বরে এসএমএস যেতে শুরু করেছে। এসএমএস না গেলেও প্রথম ডোজের টিকা কার্ড নিয়ে আগের কেন্দ্রে গিয়ে টিকা দেওয়া যাবে।
এদিকে শনিবার (১০ এপ্রিল) রাজশাহীতে প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছে মোট ৩ হাজার ৪৬১ জন। এর মধ্যে সিটি কপোরেশন এলাকায় প্রথম ডোজের টিকা নিয়েছে ২৬৫ জন এবং দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছে ১৯৬৯ জন। জেলায় প্রথম ডোজ নিয়েছে ১৭১ জন, দ্বিতীয় ডোজ এক হাজার ৬৫ জন।
শনিবার বেলা ১১ টায় রামেক হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, টিকা নেয়ার জন্য উপস্থিতি অনেক বেশি। শনিবার বেলা ১২ পর্যন্ত রামেক হাসপাতালে দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছে ১ হাজার ৬০০ জন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছে রামেক হাসপাতালের টিকা দেয়ার দায়িত্বরত সিটি কর্পোরেশনের ফুড অ্যান্ড স্যানিটারি অফিসার শেখ আরিফুল হক। তিনি জানান, দ্বিতীয় ডোজের টিকা গত বৃহস্পতিবারের মতই শনিবার সকাল থেকে শুরু হয়। তবে আজ উপস্থিতি অনেক বেশি।
এদিকে বৃহস্পতিবার টিকার বুথ ছিলো ৬ টি। শনিবার একটি বুথ বাড়ানো হয়েছে। বুথ করা হয়েছে ৭ টি। আজ রোববার নতুনভাবে আরো ৩ টি বুথ চালু করা হবে। রোববার থেকে মোট ১০ টি বুথে টিকা দেয়ার কার্যক্রম চলবে। এর আগে বৃহস্পতিবার রামেক হাসপাতালে টিকা নিয়েছে মোট ৬৫০ জন। বেলা সাড়ে ১১ টায় রামেক হাসপাতালের ৬ নম্বর বুথে গিয়ে দেখা যায় টিকা নিয়েছেন ২৫০ জন। স্বাস্থ্যকর্মীরা জানালেন সকালে ভিড় বেশি ছিলো।
রামেক হাসপাতালের টিকা দেয়ায় নিয়োজিত স্বাস্থ্যকর্মী শিমুল জানান, আজ (শনিবার) সকাল থেকেই অনেক ভিড়। টিকা নিতে আসা মানুষকে আমরা সিরিয়াল ভাবেই টিকা দিচ্ছি। বেশি বয়স্ক মানুষকে আগে দিচ্ছি। দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিয়েছে জমির উদ্দিন- তিনি জানান, আজ দ্বিতীয় ডোজের টিকা নিলাম কোনো সমস্যা হয়নি। প্রথম ডোজ নেয়ার পরেও কোনো সমস্যা হয়নি। তবে আজ অনেক ভিড় তাই একটু দেরি হয়েছে।
টিকা নিতে আসা জেসমিন জানালেন, হাসপাতালে এসে দেখছি আজ অনেক ভিড়। স্বাস্থ্যকর্মীরা জানালেন, আধাঘণ্টা পরে টিকা পাবো। রামেক হাসপাতালের উপ-পরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস জানালেন, উপস্থিতি বেশি হওয়ায় আমাদের স্বাস্থ্যকর্মীদের ২৪ জন স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োজিত রয়েছে। সাথে সিটি কর্পোরেশনের স্বাস্থ্যকর্মীরা কাজ করছেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ