ট্রাম্পের ওপর থেকে সমর্থন প্রত্যাহার করেছে আরো ক’জন রিপাবলিকান নেতা

আপডেট: অক্টোবর ৯, ২০১৬, ১১:৪০ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক
নারীদের নিয়ে বেফাঁস মন্তব্য করার পর ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রতি সমর্থন তুলে নিয়েছেন আরো কয়েকজন সিনিয়র রিপাবলিকান নেতা। তারা বলেছেন, তারা ট্রাম্পকে ভোট দেবেন না। গত শুক্রবার নারীদের নিয়ে ট্রাম্পের কুরুচিপূর্ণ মন্তব্যের একটি ভিডিও প্রকাশিত হয়। ২০০৫ সালে টেপ করা ওই ভিডিওতে দেখা যায়, সুন্দরী নারীদের দেখলে পুরুষদের মনের আকাক্সক্ষা ও তাদেরকে চুমু খাওয়া নিয়ে তিনি বেফাঁস মন্তব্য করছেন। ভিডিও টেপে দেখা গেছে, তিনি সগর্বে এক বিবাহিত নারীর সঙ্গে যৌন সম্পর্ক স্থাপনের চেষ্টার বর্ণনা দিচ্ছেন। সুন্দরী নারী দেখলেই তিনি চুমু খাওয়ার চেষ্টা করেন বলেও জানিয়েছেন।

03. Trump suport
ট্রাম্পকে বলতে শোনা গেছে, ‘তারকা হলে পুরুষ নারীর সঙ্গে যা ইচ্ছা তা-ই করতে পারে। তারকা পুরুষদের এমন আচরণ নারীরা মেনে নেন। তারকা হলে নারীদের সঙ্গে যা ইচ্ছা তা-ই করা যায়। নারীদের প্রতি এমন অশালীন মন্তব্য ফাঁস হবার পর চাপের মুখে পড়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান দলের প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প। শুক্রবার এমন মন্তব্য ফাঁস হবার পর বেশ কয়েকজন সিনিয়র রিপাবলিকান নেতা বলেছেন, তারা ট্রাম্পকে ভোট দেবেন না। তবে ট্রাম্প বলেছেন, তিনি কখনোই নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াবেন না এবং তার সমর্থকদের হতাশ করবেন না।
এএফপি জানায়, নতুন করে ট্রাম্পের প্রতি সমর্থন তুলে নেয়া রিপাবলিকান নেতাদের মধ্যে আছেন সাবেক রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জন ম্যাককেইন ও সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী কন্ডোলিজা রাইস। ম্যাককেইন বলেন, ট্রাম্পের মন্তব্যের কারণে ‘তার প্রতি শর্তসাপেক্ষে সমর্থন দেয়াও অসম্ভব হয়ে দাঁড়িয়েছে। কন্ডোলিজা রাইস বলেন, ‘যথেষ্ট! ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রেসিডেন্ট হওয়া উচিত নয়। তার সরে দাঁড়ানো উচিত’। নিউ হ্যাম্পশায়ারের সিনেটর কেলি অ্যায়োটে বলেন, নারীদের নিয়ে বেফাঁস মন্তব্য করা কোন প্রেসিডেন্ট প্রার্থীকে তিনি সমর্থন করবেন না। বেশ কয়েকজন রিপাবলিকান নেতা বলেছেন, তারা ট্রাম্পের পরিবর্তে ভাইস প্রেসিডেন্ট প্রার্থী মাইক পেন্সকে ভোট দিতে চান।
এর আগে মিট রমনি, জন কেসিক, জেব বুশ, লিন্ডসে গ্রাহামসহ অনেক সিনিয়র রিপাবলিকান নেতা ট্রাম্পকে ভোট দেবেন না বলে জানিয়েছেন। তবে ট্রাম্প এক টুইটার বার্তায় বলেন, ‘প্রেসিডেন্ট নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর সুযোগ একেবারেই নেই।’ তিনি আরো বলেন, তিনি ‘অবিশ্বাস্য’ সমর্থন পাচ্ছেন। ট্রাম্পের স্ত্রী মেলানিয়া ট্রাম্পও শনিবার বলেন, তার স্বামীর নেতা হওয়ার মত হৃদয় ও মন রয়েছে। এর আগে মার্কিন কংগ্রেসের স্পিকার পল রায়ান ডোনাল্ড ট্রাম্পকে দেয়া একটি আমন্ত্রণ প্রত্যাহার করে নেন। তিনি বলেন, ট্রাম্পের মন্তব্য শুনে তিনি ‘অসুস্থবোধ’ করছেন।- বাসস