তানোরের ‘রহমান হিমাগারে’ পচছে আলু বিপাকে চাষিরা

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১০, ২০১৭, ১২:৩১ পূর্বাহ্ণ

ইমরান হোসাইন, তানোর


হিমাগার নির্মাণ কাজ শেষ না হতেই জমকালোভাবে উদ্বোধন করা হয় রাজশাহীর তানোর উপজেলার দেবীপুর মোড় নামক স্থানে রহমান পটেটো স্টোর। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি রাখা হয় স্থানীয় সাংসদ ওমর ফারুক চৌধুরীকে। বিশেষ অতিথি ছিলেন বিদেশি কোম্পানির এজেন্টসহ মন্ত্রণালয়ের সচিব।
সেইসঙ্গে এলাকার জনপ্রতিনিধি ছাড়াও বিশিষ্ট ব্যক্তিদের দাওয়াত দেয়া হয়। দুপুরে ভোজের আয়োজন করা হয়। এসব গুরুত্বপূর্ণ অতিথিদের বোকা বানিয়ে হিমাগারটির মালিক তার স্বার্থ হাসিলের জন্য অব্যবস্থাপনার মধ্যে চাষিদের আলু সংরক্ষণ করেছেন। ফলে চাষিদের সংরক্ষণকৃত আলু হিমাগারেই পচে নষ্ট হচ্ছে।
স্থানীয়রা জানান, পচা আলুর দুর্গন্ধে বাতাস ভারী হয়ে আসছে। এই হিমাগারের সামনে তানোর ও মুন্ডুমালা রাস্তা। রাস্তা দিয়ে চলাফেরা করতে গিয়ে পচা আলুর এমন দুর্গন্ধ পাচ্ছে মানুষ। এলাকাবাসী বলছে, হিমাগারের পচা আলুর দূর্গন্ধে আশপাশে রোগ জীবাণু ছড়িয়ে পড়ছে। ফলে সেখানকার মানুষ পচা আলুর গন্ধে দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন।
তানোর পৌর এলাকার আলু চাষি হিরো জানান, আলুর বাজার একেবারে নি¤্নমুখী। উৎপাদন খরচ তো দূরের কথা হিমাগারের ভাড়া দেয়া নিয়ে দুশ্চিন্তায় রয়েছেন তিনি। এরমধ্যে হিমাগারে রাখা আলু অব্যবস্থাপনায় পচে নষ্ট হচ্ছে। তানোর উপজেলার দেবীপুর মোড়স্থ রহমান হিমাগারে তিনি ৩৫০ বস্তা আলু রেখেছেন। বিক্রি করার জন্য হিমাগারে গিয়ে দেখেন তার প্রতি বস্তায় প্রায় ২০ কেজি করে আলু পচে গেছে।
হিমাগারে গিয়ে কথা হয় আলু ব্যবসায়ী শাহিনের সঙ্গে। তিনি জানান, সাইফুল নামের এক আলু চাষি ১৩ বস্তা আলু রেখে শুধু ৭ বস্তা ভালো আলু পেয়েছেন। বাকিগুলো পচে যাবার কারণে ফেলে দেয়া হয়েছে। আলু চাষি লুৎফর রহমান জানান, তিনি ৫শ বস্তা আলু রহমান হিমাগারে রেখেছেন। হিমাগারে অব্যবস্থাপনার কারণে তার প্রায় ৫০ বস্তা আলু পচে গেছে। শুধু সাইফুল ও লুৎফর নয় একই ধরনের কথা জানান শতাধিক আলু চাষিরা।
জানতে চাইলে হিমাগারটির ম্যানেজার নুরুল ইসলাম বলেছেন, চাষিরা বাছাই করে আলু রাখেন নি। এ কারণেই হিমাগারে রাখা আলুতে পচন ধরেছে। যারা বাছাই করে হিমাগারে আলু সংরক্ষণ করেছেন। তাদের আলু ভালো আছে বলে বিষয়টি এড়িয়ে যান এই ম্যানেজার।
এ ব্যাপারে উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম জানান, হিমাগারে আলু পচনের ব্যাপারে কোন কৃষকের অভিযোগ পাওয়া যায় নি। অভিযোগ পাওয়া গেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ