তানোরে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারান্টাইন না করতে এলাকাবাসীর বাধা

আপডেট: এপ্রিল ১৩, ২০২০, ১১:২৭ অপরাহ্ণ

তানোর প্রতিনিধি


রাজশাহীর তানোর উপজেলায় আমশো উচ্চ বিদ্যালয়কে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারান্টাইন করতে গিয়ে এলাকাবাসীর বাধার মুখে পড়েন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটসহ আনসার সদস্যরা। গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, তানোরের আমশো উচ্চ বিদ্যালয়কে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারান্টাইনের জন্য নির্ধারণ করে ওই বিদ্যালয়টি সোমবার সন্ধ্যার দিকে পরিদর্শনে যান নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল মালেকসহ ৪ জন আনসার সদস্য। কিন্তু গ্রামে করোনাভাইরাসের প্রাতিষ্ঠানিক কোরেন্টাইন করা হচ্ছে জেনে এলাকাবাসী তাতে ক্ষুব্ধ হন এবং বাধা দেয়ার জন্য জড়ো হন। এসময় ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল মালেক তাদেরকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার আহ্বান জানান। তবে এলাকাবাসী সেই নির্দেশ উপেক্ষা করে এগিয়ে আসতে শুরু করেন। এসময় ম্যাজিসেট্রট সাথে থাকা আনসার বাহিনীর সদস্যরা নির্দেশনা পালনের জন্য এলাকাবাসীর দিকে এগিয়ে গেলে উত্তেজনা শুরু হয়। এতে করে এই ঘটনায় আহত হয়েছেন, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আব্দুল মালেক, আনসার সদস্য রাজিব, আলামিন, সুজন ও ইউএনও অফিসের কর্মচারী নির্মূল।
এ ব্যাপারে তানোর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুশান্ত কুমার মাহাতো বলেন, সরকারি কাজে বাধা ও সামাজিক দূরুত্ব না মেনে গণজমায়েত করার অভিযোগে আব্দুল মালেক নামের একজনকে আটক করে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে ছয়মাসের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ