তৃতীয় লিঙ্গের দুই সদস্যের চাকরি মানবিক মূল্যবোধ ওই জাগে

আপডেট: মার্চ ৪, ২০২১, ১২:১৯ পূর্বাহ্ণ

তৃতীয় লিঙ্গের জনগোষ্ঠীর দুই সদস্যকে কর্মসংস্থানের সুযোগ করে দিয়েছেন রাজশাহীর জেলা প্রশাসক মো. আব্দুল জলিল।
মারুফ হোসেন ও জনি হোসেন নামের ওই দুই তৃতীয় লিঙ্গের সদস্য ১ মার্চ থেকে রাজশাহী জেলা প্রশাসকের দপ্তরে কর্মময় জীবন শুরু করেছেন। দৈনিক সোনার দেশ পত্রিকায় প্রকাশিত এ সংক্রান্ত প্রতিবেদনে ওই দুই সদস্যের কর্মময় দিনের শুরুটাকে ‘দিনবদলের শুরু’ বলে উল্লেখ করা হয়েছে। এর আগে মাননীয় জেলা প্রশাসক তৃতীয় লিঙ্গের নেতৃবৃন্দকে তাঁর দপ্তরে চাকরি দেয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন।
সোনার দেশ পত্রিকায় প্রকাশিত প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী মারুফ হোসেন কম্পিউটার অপারেটর পদে ও জনি অফিস সহায়ক পদে যোগদান করেছেন। দৈনিক মজুরি ভিত্তিতে (মাস্টাররোল) এই নিয়োগ পেয়েছেন তারা। জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের নেজারত শাখায় তাদের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। সুযোগ বুঝে তাদের স্থায়ীভাবে নিয়োগ দেয়া হবে।
অবশ্যই রাজশাহীর জেলা প্রশাসক মো. আব্দুল জলিল তাঁর সাহসী সিদ্ধান্তের জন্য প্রশংসা পেতে পারেন। ইতোমধ্যেই তিনি তা পেতেও শুরু করেছেন। মানবিক মূল্যবোধ জাগ্রত না হলে মানুষ মানুষের জন্য হতে পারে না। মাননীয় জেলা প্রশাসক সেই মানবিক মূল্যবোধেরই সূচনা করলেন। এই বোধ ও কর্তব্য-সূত্রই মানুষের মর্যাদাকে সমুন্নত রাখতে সহায়ক হবে। মানুষকে তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করা যাদের প্রবণতা তারা সমাজের পিছিয়ে পড়া মানুষকে সমাজ থেকে বিচ্ছিন্ন করতে চায়, মানুষকে হাসি-ঠাট্টার উপকরণ বানাতে চায়। এই মানুষেরা সমাজকে পশ্চাদপদ রাখতে চায়।
কিন্তু জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতির কাছে সেই শিক্ষাই দিয়েছেন যেখানে মানুষই মহান হয়ে ওঠে। নিরন্তর সম্পৃক্ততার মধ্যে দিয়ে তিনি মানুষের ঐক্য-সংহতির জয়গান গেয়েছেন। কেননা মানুষের সক্ষমতা তা যতটুকুই হোক না কেন তা সমাজ ও রাষ্ট্রের প্রয়োজনে সক্ষমরূপে ব্যবহার করতে পারাটাই নেতৃত্বের অন্যতম প্রধান গুন। তবেই মানুষে মানুষে সম্পৃক্তির মহা সম্মিলন ঘটবে, এই ঐক্য-সংহতি বৃহত্তর মানবিক সমাজ প্রতিষ্ঠায় ভূমিকা রাখবে।
মাননীয় জেলা প্রশাসক যে সূচনা করলেন, এতে সমাজ, মূল্যবোধ ও দৃষ্টিভঙ্গির বাঁকবদল হোক। এটা সক্ষম সব দায়িত্বশীল মানুষের কর্তব্য হোক। সুযোগ না দিয়েÑ ‘কিছু হবে না’ বলার অন্তঃসারশূণ্যতার অবসান হোক। মানুষকে সুযোগ দিলে, একটু প্রশিক্ষণ দিলেই ধীরে ধীরৈ তার সক্ষমতাকে মেলে ধরতে পারে। কখনো কখনো সেটা এতোই ব্যাপক হতে পারে যে, তাতে দেশ ও দেশের মানুষ ধন্য হয়ে উঠতে পারে, এতে অবাক হকার কী! মাননীয় জেলা প্রশাসক আপনাকে ধন্যবাদ।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ