তেলের টাকাও আত্মসাৎ করেন মেয়র মুক্তার!

আপডেট: অক্টোবর ২৭, ২০২১, ১০:৩৬ অপরাহ্ণ

মুক্তার আলী

সোনার দেশ ডেস্ক :


রাজশাহীর বাঘা উপজেলার আড়ানী পৌরসভা মেয়র মুক্তার আলী ও সহকারী প্রকৌশলীর বিরুদ্ধে বিধিমালা লঙ্ঘন করে বিভিন্ন পদে নিয়োগ দেওয়া ও জিপ গাড়ি না থাকা সত্ত্বেও তেল উত্তোলন বাবদ অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে অভিযান পরিচালনা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

বুধবার (২৭ অক্টোবর) দুদক সূত্রে জানা যায়, দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক মো. আল আমিনের নেতৃত্বে একটি এনফোর্সমেন্ট টিম পৌরসভার মেয়র ও সহকারী প্রকৌশলীর অফিসে বুধবার অভিযান পরিচালনা করে।

অভিযানকালে দুদক টিম বিধিমালা লঙ্ঘন করে বিভিন্ন পদে নিয়োগ প্রদান সংক্রান্ত নথিপত্র সংগ্রহ করে। সহকারী প্রকৌশলীকে সচিব পদে নিয়োগের কোনো সুনির্দিষ্ট নিয়ম না থাকার পরেও তাকে এ পদে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। মাস্টার রোলে কর্মচারী নিয়োগের বিধান অমান্য করে দুজন অস্তিত্বহীন ব্যক্তির নামে প্রায় ৯ লাখ টাকা উত্তোলন করে মেয়র।

পৌরসভার নিজস্ব কোনো জিপ গাড়ি নেই এবং এর জন্য কোনো তেল বরাদ্দ নেই, তবে অন্য যানবাহন আছে। সেক্ষেত্রে যাচাইয়ে জন্য এনফোর্সমেন্ট টিম সংশ্লিষ্ট বরাদ্দ রেজিস্ট্রার সংগ্রহ করেছে। সব প্রকল্পের তালিকা, বরাদ্দের নথি এবং ব্যয় রেজিস্ট্রারের কপি দ্রুত সরবরাহের জন্য বলা হয়েছে।

প্রাথমিক অনুসন্ধানে সহকারী প্রকৌশলীর বেশকিছু সম্পদের তথ্য পাওয়া গেছে, যা তার আয়ের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয় বলে দুদক টিমের কাছে প্রতীয়মাণ হয়েছে। এ ক্ষেত্রে পূর্ণাঙ্গ অনুসন্ধানে সুপারিশসহ কমিশন বরাবর বিস্তারিত প্রতিবেদন দাখিল করবে দুদক এনফোর্সমেন্ট টিম।
তথ্যসূত্র: বাংলানিউজ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ