দিনাজপুরে চিকিৎসক-সাংবাদিক-পুলিশসহ ৩৩ জন নতুন করোনা আক্রান্ত

আপডেট: জুলাই ১১, ২০২০, ২:৩১ অপরাহ্ণ

দিনাজপুর সংবাদদাতা :


দিনাজপুর জেলায় গত কয়েকদিন ধরে আকস্মিকভাবে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। করোনা ভাইরাস (কোভিড-১৯) প্রতিরোধে স্বাস্থ্য বিভাগ ও জেলা প্রশাসনের কার্যক্রম ভেস্তে যেতে বসেছে। গত ২৪ ঘন্টায় দিনাজপুর জেলায় ২জন চিকিৎসক, ২ জন সাংবাদিক, ১ জন পুলিশ নতুন করে ৩৩ জন নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছে।
জানা গেছে, সপ্তাহখানেক আগে দিনাজপুর জেলায় গড়ে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ১৫ থেকে ২০ জনের মধ্যে। কিন্তু গত কয়েকদিন ধরে আকস্মিকভাবে বেড়েছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। বর্তমানে গড় প্রতিদিন ৩০ থেকে ৪০ জন করোনা আক্রান্ত হচ্ছেন।
দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজের আরটি পিসিআর ল্যাবের সূত্র মতে, শুক্রবার রাত পর্যন্ত উত্তরের ৪ জেলা দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও, পঞ্চগড় ও নীলফামারী জেলার ১৮৮টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এর মধ্যে ৪২ জনের করোনা পজিটিভ পাওয়া যায়। দিনাজপুর জেলায় ৩৩জন, ঠাকুরগাঁও জেলায় ৬ জন ও নীলফামারী জেলায় ৩ জন রয়েছেন।
জানা গেছে, দিনাজপুর সদর উপজেলায় ১৫জন, বিরামপুর উপজেলায় ৯ জন, বোচাগঞ্জ উপজেলায় ২ জন, হাকিমপুর উপজেলায় ২ জন, পার্বতীপুর উপজেলায় ২ জন, কাহারোল উপজেলায় ২ জন ও ঘোড়াঘাট উপজেলায় ১ জন রয়েছেন।
সূত্রটি জানায়, করোনা আক্রান্তের মধ্যে জেলার বিরামপুর উপজেলায় কর্মরত নয়াদিগন্ত পত্রিকার প্রতিনিধি জাকিরুল ইসলাম ও হাকিমপুর উপজেলায় (হিলি) কর্মরত বৈশাখী টিভির প্রতিনিধি মোস্তাফিজুর রহমান মিলন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এছাড়াও জেলার বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসক ডাঃ মোঃ আবুল কাশেম ও দিনাজপুর জেনারেল হাসপাতালে কর্মরত ডা. মো. আবু সায়েম করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। এদিকে বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসারের (ইউএনও) কার্যালয়ে কর্মরত ১জন কম্পিউটার অপারেট, দিনাজপুর পুলিশ লাইনসে ১ জন পুলিশ কর্মকর্তা ও জেলার পার্বতীপুর উপজেলায় ১ জন স্বাস্থ্য সহকারী ও হাকিমপুর উপজেলায় ১ জন স্বাস্থ্য সহকারী রয়েছেন।
দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজের মাইক্রো বায়োলোজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. যোগেন্দ্র নাথ সরকার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ