দিনাজপুরে বজ্রপাতে ৭ জনের মৃত্যু

আপডেট: আগস্ট ২৩, ২০২১, ৮:০৬ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক:


দিনাজপুরে এক বিকালে দুই জায়গায় বজ্রপাতে সাত জন প্রাণ হারিয়েছেন।
সোমবার বেলা ৩টার দিকে প্রবল বৃষ্টির মধ্যে দিনাজপুর সদর উপজেলার ৮ নম্বর উপশহরে এক সাথে চার কিশোর এবং চিরিরবন্দর উপজেলায় একসাথে তিন যুবক বজ্রপাতে মারা যান বলে পুলিশ ও স্থানীয়রা জানিয়েছেন।
নিহতরা হলেন, দিনাজপুর সদর উপজেলার নিশ্চিন্তপুর গ্রামের আইনুল ইসলামের ছেলে সাজ্জাদ হোসেন (১৩), বাবুল হোসেনের ছেলে আপন (১৪), সিদ্দিক হোসেনের ছেলে হাসান আলী (১২), সাজু মন্ডলের ছেলে মিম মন্ডল (১৩), চিরিরবন্দর উপজেলার দক্ষিণ সুকদেবপুর গ্রামের মকছেদ আলীর ছেলে নুর ইসলাম (২৪), সামু মোহাম্মদের ছেলে আব্দুর রাজ্জাক (২৩) এবং আলতাফ হোসেনের ছেলে আব্বাস আলী (২২)।
এছাড়া দিনাজপুর সদর উপজেলার নিশ্চিন্তপুর গ্রামের মমিনুল ইসলাম (১৩), আতিক (১৫) এবং অজ্ঞাতপরিচয় আরেক কিশোর আহত হয়েছেন।
প্রত্যক্ষদর্শী ও হতাহতদের উদ্ধারকারী ফিরোজ হোসেন ও মকসেদ আলী বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান, সোমবার বেলা ৩টায় প্রচ- বৃষ্টিপাতের মধ্যে দিনাজপুর উপশহরের ৮ নম্বর রেলঘুন্টির কাছের এক টিনশেডে মোবাইলে গেইম খেলছিল সাত কিশোর। এ সময় বজ্রপাতে সাতজনই গুরুতর আহত হয়।
তাদের উদ্ধার করে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে চার জনের মৃত্যু ঘটে। অপর তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানান তারা।
অন্যদিকে দিনাজপুর কোতয়ালী থানার ওসি মোজাফ্ফর হোসেন চারজনের মৃত্যুর তথ্য দিয়েছেন।
তিনি জানান, দক্ষিণ সুকদেবপুর গ্রামে পুকুরে মাছ ধরার সময় বজ্রপাতে একসাথে তিনজনের মৃত্যু হয়।
চিরিরবন্দর উপজেলার আব্দুলপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মঈনউদ্দীন শাহ জানান, বিকালে বাড়ির পাশের পুকুরে মাছ ধরার সময় বজ্রপাতের শিকার হন ওই তিনজন।
তথ্যসূত্র: বিডিনিউজ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ