দুর্গাপুরে বাল্যবিয়ে থেকে রক্ষা পেলো স্কুলছাত্রী

আপডেট: অক্টোবর ২৮, ২০১৬, ১১:৩১ অপরাহ্ণ

দুর্গাপুর প্রতিনিধি
দুর্গাপুরে মুন্নি খাতুন (১৪) নামে এক স্কুল পুড়য়া ছাত্রীর বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দিয়েছে উপজেলা প্রসাশন। তিনি উপজেলার কাঁঠালবাড়িয়া গ্রামের মমিন উদ্দিনের মেয়ে। গতকাল শুক্রবার বিকেলে বাল্যবিয়ের প্রস্তুতিকালে উপজেলা মহিলা বিষয়ক অধিদফতরের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে এ বিয়ে বন্ধ করে দেন।
উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মাক্বামাম মাহমুদা রিপা জানান, শুক্রবার স্কুল ছাত্রী মুন্নির জাকজমকপূর্ণ ভাবে বিয়ের আয়োজন চলছিলো। এসময় গোপন সংবাদ আসে উপজেলার কাঁঠালবাড়িয়া গ্রামের মমিন উদ্দিনের কন্যা মুন্নি ও চারঘাট উপজেলার মৃত জরশেদ শাহের ছেলে আহসান হাবিবের বাল্যবিয়ের প্রস্তুতি চলছে। এসময় আমার অফিসের হিসাব রক্ষক কম্পিউটার কাম-ক্রেডিট মিজানুুর রহমান ঘটনাস্থলে গিয়ে বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দেয় এবং বর বিয়ে বাড়ি থেকে পালিয়ে যায়। পরে মেয়ের পিতামাতা পরিমিত বয়স না হওয়া পর্যন্ত মেয়েকে বিয়ে দিবেন না বলে মুচলেকা দেন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ