দেশে ৭৬ ভাগ শিক্ষার্থী বাল্যবিয়ের কারণে ঝরে পড়ছে

আপডেট: অক্টোবর ২৬, ২০১৬, ১১:৩৪ অপরাহ্ণ

নাটোর অফিস
দেশে শতকরা ৬৮ ভাগ শিক্ষার্থী স্কুলের সামনে এবং স্কুল সংলগ্ন এলাকায় যৌনহয়রানির শিকার হচ্ছেন। আর বিবাহিত নারীর ৮০ ভাগই পারিবারিক নির্যাতনের শিকার হচ্ছেন। এছাড়া দেশের মাধ্যমিক স্তরে শতকরা যে ৭৬ ভাগ শিক্ষার্থী ঝরে পড়ছে তার অন্যতম কারণ বাল্যবিয়ে।
গতকাল বুধবার সকালে নাটোর জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে যৌনহয়রানি এবং বাল্যবিয়ে নির্মূল করণে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তোলার লক্ষ্যে এক মতবিনিময় সভায় এসব তথ্য তুলে ধরা হয়। ব্র্যাক সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচির আয়োজনে এ মতবিনিময় সভায় বক্তব্য দেন নাটোরের জেলা প্রশাসক সাহিনা খাতুন। এছাড়া অতিরিক্তি জেলা প্রশাসক রাজস্ব মনিরুজ্জামান, ব্র্যাক সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচির সমন্বয়কারী রীতা রজনীন কস্তা, নাটোর সদর উপজেলা ভাইচ চেয়ারম্যান মোর্শেদা খাতুন , নাটোর ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উপপরিচালক মতিউর রহমান, জেলা শিক্ষা অফিসার আমজাদ হোসেন, জেলা মহিলা বিসয়ক কর্মকর্তা শিরিন শাবনম, জাতীয় মহিলা পরিষদের সভানেত্রী দিলারা বেগম পারুল প্রমুখ।
এসময় বক্তারা বলেন, যৌনহয়রানি আইন ২০০৯ কঠোরভাবে বাস্তবায়ন এবং বাল্যবিয়ে রোধে সমাজের প্রতিটি স্তরের মানুষ সোচ্চার না হলে এগুলো প্রতিরোধ করা সম্ভব নয়।  এছাড়া বাল্যবিয়ে এবং যৌনহয়রানি নিয়ে বিভিন্ন তথ্য উপস্থাপন করেন স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক এনামুল হক এবং ব্র্যাক সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচির ব্যবস্থাপক সারা খাতুন।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ