নওগাঁয় চালকল ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ৪২ মামলায় ৩ লাখ ২৬ হাজার টাকা জরিমানা

আপডেট: জুন ২, ২০২২, ৫:২২ অপরাহ্ণ


নওগাঁ প্রতিনিধি :


নওগাঁয় চালের দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় চালকল এবং বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অভিযান পরিচালনা করা হয়েছে। গত মঙ্গলবার থেকে শুরু হওয়া অভিযানে বৃহস্পতিবার (০২ জুন) পর্যন্ত জেলার ১১টি উপজেলার বিভিন্ন স্থানে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে মোট ৪২টি মামলা দায়ের এবং ৩লাখ ২৬হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২জুন) পর্যন্ত জেলার সাপাহার উপজেলায় অভিযানে ৪টি মামলা ও ২৪হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়, সদর উপজেলায় ২টি মামলা ও ২০ হাজার টাকা জরিমানা, মহাদেবপুর উপজেলায় ২টি মামলা ও ৯০হাজার টাকা জরিমানা, পত্নীতলা উপজেলায় ১২টি মামলা ও ১লাখ ৩৪হাজার টাকা ও আত্রাই উপজেলায় ৪টি মামলা ও ৯হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।

এর আগে অভিযান চালিয়ে ১৮টি মামলা ও ৪৯হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। অভিযান অভ্যাহত থাকলেও এখন পর্যন্ত নওগাঁর খুচরা চাল বাজারগুলোতে কমেনি চালের দাম। বৃদ্ধি পাওয়া দামেই চাল বিক্রি হচ্ছে।

নওগাঁ পৌর ক্ষুদ্র চাল ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক উত্তম কুমার সরকার বলেন, এখন পর্যন্ত খুচরা চাল বাজারে সরকারের পরিচালনা করা অভিযানের কোন প্রভাবই পড়েনি। আমরা যে মোকামগুলো থেকে পাইকারী চাল ক্রয় করি সেখানেই বেশি দাম দিয়ে বস্তা কিনতে হচ্ছে।

তাই আমরাও বেশি দামে খুচরা বাজারে চাল বিক্রি করতে বাধ্য হচ্ছি। তবে সারা দেশে যেভাবে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে তাতে মনে হচ্ছে আগামী সপ্তাহ থেকে কিছুটা হলে চালের দাম কমতে পারে।

জেলা প্রশাসক খালিদ মেহেদী হাসান বলেন, জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে যেভাবে অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে তাতে করে আগামী সপ্তাহের প্রথম দিন থেকেই কমতে শুরু করবে সব ধরনের চালের দাম।

যতদিন চালের বাজার স্থির না হচ্ছে এবং সরকার যতদিন এই অভিযান পরিচালনার নির্দেশনা দিবেন ততদিন এই অভিযান অব্যাহত রাখা হবে। তবে সরকার ও প্রশাসনের একার পক্ষে এমন কৃত্রিম সমস্যা থেকে মুক্ত হওয়া সম্ভব নয় যতদিন না আমরা নিজ নিজ জায়গা থেকে সচেতন না হবো।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ