নওগাঁয় হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন

আপডেট: জুলাই ২০, ২০২০, ১২:২৯ অপরাহ্ণ

নওগাঁ প্রতিনিধি :


নওগাঁর মহাদেবপুর প্রেস ক্লাবের সদস্য দৈনিক স্বাধীন সংবাদ পত্রিকার উপজেলা প্রতিনিধি সুইট হোসেনের বিরুদ্ধে হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে সর্বস্তরের সাংবাদিকেরা। রোববার (১৯ জুলাই) নওগাঁ কোর্ট চত্বর প্রাঙ্গনে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে সভাপতিত্ব করেন নওগাঁ জেলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আবু বক্কর সিদ্দিক।
ঘণ্টাব্যাপি মানববন্ধনে জেলা সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি শহীদ হাসান সিদ্দিকী স্বপন, সাধারণ সম্পাদক আজাদ হোসেন মুরাদ, জেলা প্রেসক্লাবের যুগ্ম সম্পাদক মাহমুদুন নবী বেলাল, ডিবিসি নিউজ টেলিভিশনের প্রতিনিধি এ.কে. সাজুসহ অন্যান্য সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন। বক্তারা বলেন, নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার নওহাটা মোড় থেকে গত ৮ জুলাই বুধবার সন্ধ্যা ৮.৩০ মিনিটের সময় জাতীয় দৈনিক স্বাধীন সংবাদ, দেশের কণ্ঠ ও তরঙ্গ নিউজ ২৪.কম এর সাংবাদিক সুইটকে মহাদেবপুর থানা ও নওহাটা পুলিশ ফাঁড়ির পুলিশ সাংবাদিক সুইট কে চ্যালেঞ্জ করে তোমার কাছে অবৈধ কিছু আছে এরপর তার দেহ তল্লাশি করে কিছু না পেয়ে পাশে থাকা সুইটের মটরসাইকেল তল্লাশি করে সিটের নিচে সামান্য ফাঁকা স্থান থেকে ৪৪ পিস ইয়াবা উদ্ধার করে তাকে আটক দেখানো হয়। যা স্থানীয় বাসিন্দা ও আমাদের মনেকে প্রশ্নবিদ্ধ করে।
এ ছাড়া সাংবাদিক সুইট হোসেনের সাথে তার প্রতিবেশি এক দোকানদারের সাথে দীর্ঘদিন শত্রুতা চলে আসছিল এবং নওহাটা ফাঁড়ি পুলিশের এক সদস্যের ফেসবুক হ্যাকের বিষয়ে ওই দোকানদারসহ পুলিশ সদস্য সুইট হোসেনকে দোষারপ করছিলেন। এ ছাড়া স্থানীয় এক যুবলীগ নেতা শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানির সংবাদ প্রকাশ করার ফলে ওই যুবলীগ নেতা দল থেকে বহিষ্কার হন। আর এই তিন জনের যোগ সাজসেই সুইট হোসেনকে ফাঁসানো হয়েছে বলে সাংবাদিকরা সন্দেহ প্রকাশ করেন। বক্তারা আরও বলেন, সুইট হোসনকে জনসম্মুখে আটক করার পরও উল্লেখ করা হয়েছে, দৌড়ে পালানোর সময় তাকে ধাওয়া করে আটক করা হয়েছে।
আর তাই এ ঘটনায় সুস্পষ্ট তদন্ত করে জড়িতদের আইনের আওতায় আনার জন্য মামলাটি পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) এর মাধ্যমে তদন্ত দাবি তুলে ধরেন সাংবাদিকরা।