নগরীতে বাস চাপায় গার্মেন্টসকর্মী নিহত আহত চার, বাস ভাঙচুর

আপডেট: জুন ২৯, ২০১৭, ১২:৫০ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক


নগরীর ভদ্রা এলাকায় যাত্রীবাহী বাসের চাপায় শরীয়ত উল্লাহ (৩৫) নামে এক গার্মেন্টসকর্মী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো চারজন। তাদের রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গতকাল বুধবার দুপুর দুইটার দিকে এই দুর্ঘটনা ঘটে। এসময় উত্তেজিত জনতা বাস ভাঙচুর করেন।
নিহত শরীয়ত উল্লাহ বাড়ি ঢাকার সাভারে। তিনি সাভারের নিউ হরিজন বিডি লিমিটেড নামের একটি গার্মেন্টসের নিটিং সেকশনের জেনারেল অপারেটর পদে চাকরি করতেন। তার লাশ ময়নাতদন্তের পর নিকটাত্মীয়দের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
আহতরা হলেন, নগরীর মতিহার থানার দেওপাড়া এলাকার সোহান আলী (৪৫), কাদিরগঞ্জ এলাকার মাসুম আলী (৪২), নওগাঁর মান্দা উপজেলার মইনুম এলাকার রেজাউল সরদার (৩০) ও রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার দাসপাড়া গ্রামের ইব্রাহীম হোসেন (৬৫)। তাদের রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
রাজশাহী মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার আবদুর রশিদ জানান, দুপুর দুইটার দিকে নগরীর ভদ্রা এলাকায় এম আলী নামে যাত্রীবাহী একটি বাস টার্নিং নেয়ার সময় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে শরীয়ত উল্লাহকে চাপা দিয়ে একটি অটোরিকশাকে ধাক্কা দেয়।
এর ফলে ঘটনাস্থলেই শরীয়ত উল্লাহ মারা যান। আর অটোরিকশা চালকসহ চারজন আহত হন। ঘটনার পর স্থানীয়রা ওই রাস্তায় কিছুক্ষণের জন্য যানচলাচল বন্ধ করে দিয়ে বিক্ষোভ করেন এবং বাসটি ভাঙচুর করেন। পরে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।
পুলিশ জানিয়েছে, দুর্ঘটনার পর বাসের চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছে। তবে এ ব্যাপারে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। বাসের চালক ও হেলপারকে গ্রেফতারের জন্য অভিযান শুরু করেছে পুলিশ।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ