নগরীতে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর আত্মহত্যা

আপডেট: অক্টোবর ৩০, ২০১৬, ১১:৫৫ অপরাহ্ণ


নিজস্ব প্রতিবেদক
নগরীর রানীনগর হিন্দুপাড়া এলাকায় গলায় ফাঁস দিয়ে আনিকা খাতুন (২০) নামে বিশ^বিদ্যালয় পড়–য়া এক ছাত্রী আত্মহত্যা করেছেন। গতকাল রোববার রাত ৮টার দিকে পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে। আনিকা রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার কেশরহাট এলাকার মোনতাজুর রহমানের মেয়ে। তিনি বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসি বিভাগের দ্বিতীয় সেমিস্টারে পড়াশোনা করতেন।
নগরীর বোয়ালিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাহাদাত হোসেন খান জানান, ওই ছাত্রীর বাবা দেশের বাইরে থাকেন। আর তার পরিবার রাজশাহী নগরীতে ভাড়া বাসায় থাকেন। এ বাসাতেই ওই ছাত্রী আত্মহত্যা করেন। পরে ঘরের দরজা ভেঙ্গে তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়।
ওসি আরও জানান, লাশ রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজের (রামেক) মর্গে পাঠানো হয়েছে। আর তার ঘর থেকে একটি ‘সুইসাইড নোট’ উদ্ধার করা হয়েছে। তাতে লেখা আছে, ‘আমার মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ি নয়। আমি সবার কাছে অবহেলার পাত্রী। অবহেলা সইতে সইতে আমি ক্লান্ত। আর পারছিনা। এবার মুক্তি চাই। নি:শর্ত মুক্তি।’
এ ব্যাপারে ওসি বলেন, ওই ছাত্রীর আত্মহত্যার কারণ অনুসন্ধান করা হচ্ছে। তার পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় মামলা করা হলে তা নেয়া হবে।