নগরীতে রমজানের আগে নিত্যপণ্যের দাম কিছুটা বেড়েছে

আপডেট: এপ্রিল ২৩, ২০২০, ৮:৪৮ অপরাহ্ণ

শরিফুল ইসলাম


করোনাভাইরাসের কারণে দোকানপাট বন্ধ থাকলেও নিত্যপণ্যের দোকান খোলা রয়েছে। শনিবার (২৫ এপ্রিল) থেকে রমজান মাস শুরু হচ্ছে। এই সুযোগে নিত্যপণ্যের দাম উর্ধ্বমুখি। বৃহস্পতিবার (২২ এপ্রিল) নগরীর শালবাগান, উপশহর নিউমার্কেট, আরডিএ মার্কেট ঘুরে দেখা গেছে, কাঁচা বাজারসহ নিত্যপণ্যের দোকানপাট খোলা রয়েছে। তবে ক্রেতা সাধারণের তেমন ভিড় না থাকলেও জিনিসপত্রের দাম কিছুটা বেড়েছে।
তরিতরকারির দাম কেজিতে ৫ থেকে ১০ টাকা বেড়েছে। ছোলা প্রতি কেজি ৭৫ থেকে ৮০ টাকা, পেঁয়াজ ৫০ টাকা, শশা ২৫ থেকে ৩০ টাকা, কার্ডিনাল আলু ২৫ টাকা, দেশি আলু ৩৫ টাকা, বেগুন ২০ টাকা, ঢেঁড়শ ২০ টাকা, করলা ৪০ টাকা, পটল ৩০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে। কয়েক দিন আগে পটল ২৫ টাকা, করলা ৩০ টাকা দরে বিক্রি হয়েছে।
সরেজমিন দেখা গেছে, মাস্টারপাড়া সবজিবাজারে আগের মত সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে দোকান পাট বসলেও তেমন ভিড় ছিলনা। তবে আরডিএ মুদি দোকানগুলোতে কিছুটা ভিড় দেখা গেছে।
রমজানের শুরুতে ক্রেতারা প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র ক্রয় করছেন। করোনা ভাইরাসের কারণে এবারে ইফতারির বাজার নাও বসতে পারে সে জন্য বাড়িতে ইফতারীর জন্য ক্রেতারা ইফতারী বানানোর জন্য প্রয়োজনীয় জিনিস ক্রয় করে নিচ্ছেন।
মুদির দোকানগুলোতে বিশেষ করে ছোলা, ডাল, সয়াবিন তেল, বেসন আটা, পেঁয়াজ, কাঁচা মরিচ, বেগুন বেশি বিক্রি হচ্ছে। তবে করোনা ভাইরাসের কারণে বিশেষ ছুটি থাকায় বেশির ভাগ কর্মজীবী মানুষরা বাড়িতে থাকায় অনেকে আগাম বাজার করে রাখায় বাজারে তেমন ভিড় লক্ষ্য করা যায়নি। এদিকে মাছ ও মাংশের দাম স্থিতিশীল রয়েছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ