নগরীতে ৩০০ লিটার চোলাইমদ উদ্ধার; গ্রেপ্তার ১

আপডেট: এপ্রিল ১৪, ২০২৪, ৩:১৫ অপরাহ্ণ


নিজস্ব প্রতিবেদক:নগরী’র শাহমখদুম থানার পবা নতুন পাড়া এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ৩০০ লিটার চোলাইমদসহ এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে আরএমপি’র ডিবি পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃত আসামি মো: হামিদুল মন্ডল রাব্বী (২৭) রাজশাহী মহানগরীর চন্দ্রিমা থানার শিরোইল কলোনীর মো: ইউনুছ মন্ডলের ছেলে।

ঘটনা সূত্রে জানা যায়, শনিবার (১৩ এপ্রিল) রাত পৌনে ৯ টায় রাজশাহী মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার (অতি: ডিআইজি পদে পদোন্নতি-প্রাপ্ত) কে.এম. আরিফুল হক বি.পি.এম, পি.পি.এম-এর সার্বিক তত্ত্বাবধানে-অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার ড. মো: রুহুল আমিন সরকারের দিকনির্দেশনায় সহকারী পুলিশ কমিশনার মোসা: আরজিনা খাতুনের নেতৃত্বে এসআই মো: শারিফুর রায়হান ও তাঁর টিম মহানগর এলাকায় মাদকদ্রব্য উদ্ধার অভিযান ডিউটি করছিলো।

এসময় তাঁরা গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারেন শাহমখদুম থানার পবা নতুন পাড়া এলাকায় শ্রী গণেশ ভূইয়া তপন তার বাড়িতে বিপুল পরিমান চোলাইমদ মজুত রেখে বিক্রি করছে। উক্ত সংবাদের পরিপ্রেক্ষিতে ডিবি পুলিশের ঐ টিম রাত ৯ টায় শাহমখদুম থানার পবা নতুন পাড়া এলাকায় শ্রী গণেশ ভূইয়া তপনের বাড়িতে অভিযান পরিচালনা করে আসামি হামিদুল মন্ডল রাব্বিকে গ্রেপ্তার করতে পারলেও অপর আসামি শ্রী গণেশ ভূইয়া কৌশলে পালিয়ে যায়।

এসময় গ্রেপ্তারকৃত আসামির কাছ থেকে ৩০০ লিটার চোলাইমদ উদ্ধার হয়। জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত আসামি জানায়, সে পলাতক আসামি শ্রী গণেশ ভূইয়া তপনের কাছ থেকে চোলাইমদ ক্রয় করছিলো। তারা দীর্ঘদিন যাবৎ চোলাইমদের ব্যবসা করে আসছে। পলাতক আসামি শ্রী গণেশ ভূইয়ার বিরুদ্ধে আরএমপি’র শাহমখদুম থানায় ৬টি মাদক মামলা রয়েছে। তাকে গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যহত আছে।

গ্রেপ্তারকৃত ও পলাতক আসামিদের বিরুদ্ধে আরএমপি’র শাহমখদুম থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা রুজু করে গ্রেপ্তারকৃত আসামিকে বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে ।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Exit mobile version