নগরীর ফুটপাতে চা বিক্রেতারদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

আপডেট: আগস্ট ১, ২০২১, ১০:৩২ অপরাহ্ণ

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি:


করোনাকে ভয় নয়, সচেতনতার মাধ্যমে করতে হবে জয়। সেজন্য সকলকে সরকারী নির্দেশনা মেনে চলতে হবে। বাড়ির বাইরে গেলে অবশ্যই মাস্ক পরতে হবে। অতি জরুরী প্রয়োজন ছাড়া কেউ বাড়ির বাইরে বের হবো না। সচেতনতাই করোনা প্রতিরোধের অন্যতম হাতিয়ার।
রোববার (০১ আগস্ট) সকালে নগরীর কুমারপাড়াস্থ সরকার টাওয়ারে দেড় শতাধিক ফুটপাতে বসা চা-বিক্রেতাদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণকালে এসব কথা বলেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ, রাজশাহী মহানগরের সাধারণ সম্পাদক মো. ডাবলু সরকার। তিনি বলেন, করোনার এই দুঃসময়ে কেউ যাতে না খেয়ে থাকে সেকথা মাথায় রেখে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনা সকল নেতাকর্মীকে গরীব, অসহায়, ছিন্নমূল, দিনমুজুর ও কর্মহীন মানুষদের পাশে থাকার নির্দেশ দিয়েছেন। তাঁরই নির্দেশনা মোতাবেক আ’লীগের নেতারা যে যেভাবে পারছে গরীব অসহায়দের মাঝে নগদ অর্থ এবং খাদ্য সামগ্রী দিয়ে সহযোগীতা করছে। ডাবলু সরকার বলেন, করোনার শুরু থেকেই কোন আওয়ামী লীগ নেতারা কোথাও পালিয়ে অথবা লুকিয়ে থাকেনি। দেশবাসীকে সচেতন এবং খাদ্য সামগ্রী দিয়ে সহযোগীতা করে আসছে। বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী সকলের জন্য ভ্যাকসিনের ব্যবস্থা করছেন। আপনারা সকলে টিকা দিবেন। ভ্যাকসিনের ব্যাপারে বিরোধীদলের অনেক নেতারা বিরুপ মন্তব্য করেছিলো। কিন্তু আজ কি হলো বিরোধীদলীয় নেত্রী খালেদা জিয়া, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ বিএনপির বহু নেতা এই ভ্যাকসিন নিয়েছে। তাই কোন গুজবে আপনারা কান দিবেন না। এখন শুধু শহরে নয় গ্রামের সকল পর্যায়ের মানুষদের জন্যও ভ্যাকসিন প্রদানের ব্যবস্থা করেছেন। তারা শুধুমাত্র আইডি কার্ড দেখিয়ে বিনামূল্যে টিকা নিতে পারবে। এটা শুধুমাত্র সম্ভব হয়েছে বাংলাদেশের একজন সফল প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনার জন্য। আপনারা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনা সহ সকল আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের জন্য দোয়া করবেন। খাদ্য বিতরণ অনুষ্ঠানের শুরুতেই শোকাবহ আগস্ট মাস উপলক্ষে হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ ১৫ আগস্টে নিহত শহীদদের স্মরণে ১ মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। খাদ্য সামগ্রীর মধ্যে ছিলো ১০ কেজি চাল ও ১ কেজি ডাল। খাদ্য সামগ্রী বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন নগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবাল, রেজাউল ইসলাম বাবলু, উপ-দপ্তর সম্পাদক পঙ্কজ দে, উপ-প্রচার সম্পাদক সিদ্দিক আলম, সদস্য ও ৯ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ সভাপতি আশরাফ উদ্দিন খান, সদস্য ও ১৬ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি সৈয়দ মনতাজ আহমেদ, সদস্য ও ২১ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন, ১২ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বিপন্ন কুমার সরকার প্রমুখ।