নাচোল পৌরসভা নির্বাচনে ত্রিমুখি লড়াই, শক্ত অবস্থানে আ’লীগের প্রার্থী

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২১, ৯:৪৭ অপরাহ্ণ

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি:


আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি নাচোল পৌরসভা নির্বাচনকে ঘিরে চলছে ব্যাপক প্রচার প্রচারণা, পোস্টারে পোস্টারে ছেয়ে গেছে পুরো পৌর এলাকা। প্রধান রাজনৈতিক দল নাচোল পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুর রশিদ (নৌকা), বিএনপি মনোনিত ধানের শীষের প্রার্থী মাসউদা আফরোজ হক সূচী, বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী আমানউল্লাহ আল মাসুদ রেল ইঞ্জিন প্রতীক এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী রেজাউল করিম বাবু চামুচ প্রতিক নিয়ে প্রতিন্দ্বিন্দ্বিতা করছেন।
জানা গেছে, নির্বাচন ঘনিয়ে আসার সাথে সাথে নির্বাচনী সমীকরণ পাল্টাতে শুরু করেছে। গত বছরে এ পৌরসভা আওয়ামীলীগ মনোনিত প্রার্থী আব্দুর রশিদ বিজয়ী হন এবং নাচোল পৌরসভার ব্যাপক উন্নয়ন করায় দলীয় কর্মীরা জয়ের নাগাল পেতে মরিয়া হয়ে কাজ করছেন, বিশেষ করে বিপুল সংখ্যক নারী ও পুরুষ সমর্থক ভোটারদের দ্বারে দ্বারে নিরলস ভোট প্রার্থনা করে চলেছেন। এছাড়াও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেও প্রচার প্রচারণা চালাচ্ছেন মনোনয়ন প্রত্যাশী ও তাদের সমর্থকরা। বিএনপির প্রার্থী মাসউদা আফরোজ হক সূচী দলীয় নেতা কর্মী নিয়ে গণসংযোগ, পথসভার মাধ্যমে ভোট প্রার্থনা করে চলেছেন। অন্যদিকে বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী আমানউল্লাহ আল মাসুদ জয়ের নাগাল পেতে মরিয়া হয়ে কাজ করছেন। তবে স্বতন্ত্র প্রার্থী রেজাউল করিম বাবুর প্রচার প্রচারণা নাই বললেই চলে। জানা গেছে নাচোল পৌরসভা ৯টি ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত। পুরুষ ভোটার ৭২৪০ জন ও নারী ভোটার ৭৭৬৮ জন। মোট কমিশনার প্রার্থী ৪৬জন ও ভোট কেন্দ্র ১০টি। সর্বশেষ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের আব্দুর রশিদ ৩ হাজার ২১৮ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন, তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির বিদ্রোহী আমানউল্লাহ আল মাসুদ ২ হাজার ৭২০ ভোট, ধানের শীষের প্রার্থী কামরুজ্জামান ২ হাজার ৬১০ ভোট। গত ১১ মাস আগে বৈশ্যিক করোনাভাইরাস মহামারির ঢেউ নাচোল পৌরসভাকে এলোমেলো করে দেয় এবং মানুষ গৃহ বন্দি হয়ে পড়ে। সে সময় নাচোল পৌরসভার মেয়র আব্দুর রশিদ ও উপজেলা চেয়ারম্যান আওয়ামীলীগ নেতা আব্দুল কাদের টাকা, চাল, ডাল, আলু তৈলসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যদি নিয়ে পৌর এলাকায় সমগ্র দরিদ্র মানুষের পাশে দাঁড়ান। ফলে পৌর এলাকার সাধারন মানুষ দলমত নির্বিশেষে নৌকার প্রার্থীর পক্ষে জোরালো সর্মথন দিয়ে চলেছেন। পৌর এলাকার সনামধন্য ব্যবসায়ী পলাশ জোহা জানান, চলতি পৌরসভা নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের যে গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে, বিশেষ করে পৌর নাগরিকগন মেয়রের কাক্সিক্ষত সেবা ও উন্নয়ন পেয়ে যে ভাবে প্রচারনা চালাচ্ছেন তাতে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী জয়ের পথে আছে, এতে কোন সন্দেহ নাই। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান জান্নাতুল নাইম মুন্নি জানান, পিছিয়ে পড়া নাচোল পৌরসভায় প্রসস্ত রাস্তা, বিদ্যুতিক আলো, ড্রেনেজ ব্যবস্থা, সুপেয়ও পানির ব্যবস্থা করায় আমরা ভোট দিয়ে ঋণ শোধ করব। অন্যদিকে বসে নেই বিএনপি প্রার্থী মাসউদা আফরোজ হক সূচী তিনিও দলীয় নেতা কর্মী নিয়ে মানুষের দারে দারে ভোট প্রার্থনা করে চলেছেন। তিনি জয়ের ব্যপারে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এদিকে বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী আমানউল্লাহ আল মাসুদ জানান, গত নির্বাচনে তিনি ৫ শত ভোটে পরাজিত হয়েছিলেন তার বিশ্বাস জনগন তাকে বিপুল পরিমান ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করবেন। নাচোল উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদের জানান সকল পর্যায়ের দলীয় নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করায় চলতি পৌরসভা নির্বাচনে নৌকা প্রার্থীর যে গণজোয়ার উঠেছে, তাতে আমাদের জয় অনিবার্য।
নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আব্দুর রশিদ জানান আমি সকল সম্মানিত ভোটারদের সাথে দেখা করেছি এবং গত ৫ বছরে পৌর নাগরিকদের সেবা ও উল্লেখ যোগ্য উন্নয়ন করেছি। আমি আবারও নির্বাচিত হলে প্রসস্থ রাস্তা, ড্রেন, বিদ্যুৎ, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা সুপেয় পানি, ছাত্র-ছাত্রীদের খেলার ব্যবস্থা, ১টি আধুনিক পার্ক এবং মাদক মুক্ত মডেল পৌরসভা গঠন করব।
সরেজমিনে বিভিন্ন পেশার ২শতাধিক ভোটারদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, এবারের নির্বাচনে নৌকা, ধানের শীষ ও রেল ইজ্ঞিনের হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হবে, তবে শক্ত অবস্থানে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আব্দুর রশিদ।