নাটোরে বিভক্ত আ.লীগ, কমিটি গঠন নিয়ে বর্তমান সাংসদ বকুলসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০২১, ১১:০৬ অপরাহ্ণ

নাটোর প্রতিনিধি:


নাটোরে বিভক্ত আ.লীগ, সাবেক সাংসদ আবুল কালাম আজাদ ও বর্তমান সাংসদ শহিদুল ইসলাম বকুল সর্মথকদের মধ্যে নাটোর ১ আসন (লালপুর-বাগাতিপাড়া) এ দুই উপজেলার ইউনিয়ন এবং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের কমিটি গঠন নিয়ে শেষ পর্যন্ত আদালতে গড়াল ওই আসনের রাজনীতি। এখতিয়ার বহির্ভূতভাবে আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন আহবান এবং ও কমিটি গঠনের অভিযোগ এনে সংসদ সদস্য শহিদুল ইসলাম বকুল সহ ছয়জনের নামের আদালতে মামলা দায়ের হয়েছে। বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলতাফ হোসেন ঝুলফু এবং সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ইসাহাক আলী বাদী হয়ে আদালতে এই মামলা করেন। মামলায় আদালত ৬অভিযুক্ত ব্যক্তিদের আগামি সাত কার্য্য দিনের মধ্যে কারণ দর্শানোর নোটিশ দিয়েছেন। বাদীপক্ষের আইনজীবী প্রসাদ কুমার তালুকদার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
আদালত সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, লালপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আফতাব হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক ইসাহাক আলী বাদী হয়ে মঙ্গলবার কমিটি গঠনের ওপর চিরস্থায়ী নিষেধাজ্ঞার বিষয়ে মামলা করেন। মামলায় সাংসদ শহিদুল ইসলামসহ তাঁর পাঁচ অনুসারীকে আসামি করা হয়েছে।
তাঁরা এখতিয়ারবহির্ভূতভাবে গঠনতন্ত্র লঙ্ঘন করে তৃণমূল (ওয়ার্ড কমিটি) পর্যায়ে ত্রিবার্ষিক সম্মেলন আহবান করে দলের নতুন কমিটি গঠন করছেন। এ ক্ষেত্রে ইউনিয়ন ও উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতাদের অনুমতি নেয়া হচ্ছে না। এতে দলের মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হচ্ছে।
এ বিষয়ে সাংসদের সমর্থক ও এ মামলার অন্যতম আসামি লালপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আইনজীবী আলাউদ্দিন আলাল বলেন, তারা মামলার বিষয়ে কিছুই জানেন না। আদালতের নোটিশ পেলে তারা জবাব দেবেন। তিনি আরও বলেন, মামলার বাদীপক্ষ সম্মেলন আহবান করে অন্যায়ভাবে পুরোনো কমিটি নবায়ন করছে। বিষয়টি তারা আদালতের কাছে তুলে ধরবেন।
মামলার বাদী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলতাফ হোসেন ঝুলফু বলেন, সাংসদ বকুল এখতিয়ার বর্হিভুত ভাবে ইউনিয়ন এবং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের কমিটি গঠন করছে। অথচ এই কমিটি গঠন করতে পারার এখতিয়ার উপজেলা আওয়ামীলীগের। আমরা এরআগে দলের হাই কমান্ডের কাছে একাধিকবার অভিযোগ করেছি। কিন্তু কোন প্রতিকার পায়নি। যার কারনে আদালতের আশ্রয় নিয়েছি।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ