নিয়ামতপুরে অন্তঃসত্তা নারীর আত্মহত্যা, বাবা-মা’র দাবি হত্যা

আপডেট: অক্টোবর ১৫, ২০২৩, ১০:২০ অপরাহ্ণ

নিয়ামতপুর (নওগাঁ) প্রতিনিধ:


নওগাঁর নিয়ামতপুরে পারিবারিক কলহের জেরে ৪ মাসের অন্তঃসত্তা নারীকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে তার স্বামী, শশুর ও শাশুড়ীর বিরুদ্ধে।
রবিবার সকালে উপজেলার শ্রীমন্তপুর ইউনিয়নের ঘুলকুড়ি গ্রামের তার স্বামীর বাড়ি থেকে সাবিনা খাতুন (২৩) এর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। সাবিনা খাতুন মান্দা উপজেলার ভালাইন ইউনিয়নের বৈলশিং গ্রামের আব্দুল মালেকর মেয়ে।

সাবিনার বাবা আব্দুল মালেক বলেন, তিন বছর পূর্বে ঘুলকুড়ি গ্রামের হোসেনের ছেলে জীবনের সাথে আমার মেয়ে সাবিনা খাতুনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই ছোট খাটো বিষয় নিয়ে মেয়ে ও জামাইয়ের পারিবারিক অশান্তি লেগেই ছিল। জামাইয়ের বাবা-মার উস্কানিতে আমার মেয়ে কখনোই শান্তি পায়নি। অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় আজ সকালে গলায় ফাঁস দিয়েছে বলে আমাকে খবর দেয়। পরিকল্পিতভাবে হত্যা করে আত্মহত্যা বলে প্রচার করছেন। তিনি এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার চান।

থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাইদুল ইসলাম বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। আত্মহত্যায় প্রচারণা দেওয়ার অভিযোগে একটি মামলা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে আসামীরা পলাতক রয়েছে। গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।