নিয়ামতপুরে সরকারি নির্দেশনা মানছেন না জনসাধারণ ও ব্যবসায়ীরা

আপডেট: মার্চ ২৫, ২০২০, ১২:৪৪ পূর্বাহ্ণ

নিয়ামতপুর প্রতিনিধি


নওগাঁর নিয়ামতপুর উপজেলাবাসী ও ব্যবসায়ীরা সরকারি নির্দেশনা মানছেন না। উপজেলা নির্বাহী অফিসার জয়া মারীয়া পেরেরার নির্দেশে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য, ওষুধের দোকান বন্ধে মাইকিং করলেও উপজেলা সদরের খাবারের হোটেল, স্টল ছাড়া উপজেলার অন্যান্য বাজার, গ্রামের স্টলগুলো স্বাভাবিকভাবেই চলছে। প্রশাসনের নজরদারী সত্ত্বেও কেউ তা মানতে চাচ্ছেন না। জনসমাগম এড়াতে গত সোমবার উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নির্দেশে দোকান, হোটেল, রেস্তোরা বন্ধের জন্য মাইকিং করা হয়। নিয়ামতপুর উপজেলার সবচেয়ে বড় পশুর হাট ছাতড়া। সেখানে সকালে পশুর হাট বন্ধ থাকলেও জনসমাগম অনেক ছিল। সংবাদ পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার নিজে উপস্থিত হয়ে জনসাধারণকে বুঝান করোনাভাইরাসের বিষয়ে। এছাড়া গাংগোর বাজার অন্যান্য দিনের মতই স্বাভাবিকভাবেই চলেছে। এছাড়াও নিয়ামতপুর উপজেলা সদরের অন্যান্য দোকান স্বাভাবিকভাবেই খোলা রয়েছে।
অপরদিকে করোনাভাইরাস প্রতিরোধ, সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষে নওগাঁর নিয়ামতপুর উপজেলার ভাবিচা ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ওবাইদুল হকের উদ্যোগে নিজ ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য, গ্রাম পুলিশসহ অন্যান্য ব্যক্তি এবং ইউনিয়নের বিভিন্ন মোড়, গুরুত্বপূর্ণ স্থানে মাস্ক, হাতের গ্লোবস ও সাবান বিতরণ করা হয়।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন ভাবিচা ইউপি সদস্য ও প্যানেল চেয়ারম্যান তুসিত সরকার, উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতা পবিত্র সরকার, হাজিনগর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতা সেলিম রেজা ডালিম।