পাঁচ দিন পর রামেক হাসপাতালে নমুনা পরীক্ষা শুরু

আপডেট: আগস্ট ৯, ২০২০, ১০:৪৬ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক


পাঁচ দিন বন্ধ থাকার পর রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের (রামেক) পিসিআর ল্যাবে আবারও করোনার নমুনা পরীক্ষা শুরু হয়েছে। শনিবার দিবাগত রাত ২টার দিকে ল্যাবটিতে ৯৪ জনের নমুনার রিপোর্ট হয়েছে।
এতে ১৮টি নমুনা করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে। বাকিগুলো নেগেটিভ। রামেক হাসপাতালের উপপরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি জানান, নতুন শনাক্তদের মধ্যে ১০ জন রামেক হাসপাতালের রোগী ও চিকিৎসক। এছাড়া তিনজন পুলিশ সদস্য, দুইজন র‌্যাব সদস্য, নগরীর দুই এলাকার দুইজন এবং জেলার দুর্গাপুর উপজেলার দুইজনের করোনা পজিটিভ পাওয়া গেছে।
ল্যাবটিতে গত এক সপ্তাহ ধরে নমুনা পরীক্ষা ঠিকমতো হচ্ছিল না। সর্বশেষ ২ আগস্ট ল্যাব থেকে ৯৪ জনের রিপোর্ট হয়েছিল। এর আগে গত ৩১ জুলাই পিসিআর মেশিনের ত্রুটির কারণে ৯৪টি নমুনার সবগুলোর রিপোর্টই আসে করোনা পজিটিভ। পিসিআর মেশিনে ত্রুটির কারণে এমনটি হয়েছে ধরে নিয়ে সে ফলাফল আর ঘোষণা করা হয়নি। এরপর ১ ও ২ আগস্ট নমুনা পরীক্ষা করা হয়। কিন্তু পরে আবারও ত্রুটি দেখা দেয় মেশিনে। এরপর থেকে মেশিনের ত্রুটি সারানোর কাজ চলছিল।
হাসপাতালের উপপরিচালক ডা. সাইফুল ফেরদৌস বলেন, পিসিআর মেশিনে ত্রুটি দেখা দিয়েছিল। বার বার নমুনা পরীক্ষা করে দেখা হচ্ছিল মেশিনটি ঠিকমতো কাজ করছিল কি না। অবশেষে ত্রুটি সারানো গেছে। রামেক হাসপাতালের ল্যাবে একসঙ্গে ১৮৮টি নমুনা পরীক্ষার সক্ষমতা রয়েছে। রাজশাহী মেডিকেল কলেজের ভাইরোলজি বিভাগের ল্যাবেও ১৮৮টি নমুনা
পরীক্ষা করা যায়। হাসপাতালে নমুনা পরীক্ষা বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর শুধু কলেজে নমুনা পরীক্ষা করা হচ্ছিল। পাঁচ দিন পর হাসপাতালের ল্যাবও চালু হলো।