পাকিস্তানের মাঠে শোয়েব-পত্নীকে দেখেই সানিয়ার নাম উচ্চারণ, রেগে গেলেন নতুন স্ত্রী

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ২১, ২০২৪, ৩:২৬ অপরাহ্ণ


সোনার দেশ ডেস্ক:নিজের দেশেই মস্করার সামনে পড়লেন সানা জাভেদ। সানিয়া মির্জ়ার সাথে বিচ্ছেদের পরে পাকিস্তানের অভিনেত্রী সানাকে বিয়ে করেছেন শোয়েব মালিক। এই বিয়ের পরে শোয়েবের বিপক্ষে গিয়ে সানিয়াকেই সমর্থন করেছে পাক ক্রিকেটারের পরিবার। শোয়েবের বিয়েতে পরিবারের কেউ আসেনি। এ বার সানাকে মাঠে খোঁচা দিলেন পাক দর্শকেরা। রেগে গেলেন সানা।

রবিবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) পাকিস্তান সুপার লিগে মুলতানের মাঠে করাচী কিংসের বিরুদ্ধে মুলতান সুলতানের খেলা ছিলো। করাচীর হয়ে খেলেন শোয়েব। স্বামীর খেলা দেখতে মাঠে গিয়েছিলেন সানা। তিনি বাউন্ডারির সামনে দাঁড়িয়েছিলেন। তাঁকে চিনে ফেলেন দর্শকেরা। সানিয়ার নামে চিৎকার করতে থাকেন তাঁরা। এ কথা শুনে রেগে যান সানা। তিনি দর্শকদের দিকে এক বার তাকিয়ে তার পর মাঠ ছেড়ে চলে যান। এই ঘটনার ভিডিয়ো সমাজমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

পাকিস্তান সুপার লিগে ব্যাট হাতে শুরুটা ভাল করেছেন শোয়েব। করাচীর হয়ে ৩৫ বলে ৫৩ রানের ইনিংস খেলেছেন তিনি। তার পরেও দলকে জেতাতে পারেননি তিনি। মুলতানের কাছে ৫৫ রানে হেরেছে করাচী।
গত কয়েক বছর সানিয়া ও শোয়েবের সম্পর্ক ভাল ছিল না। দু’জনে আলাদা থাকছিলেন। গত ২০ জানুয়ারি পাক অভিনেত্রী সানার সঙ্গে তাঁর বিয়ের ছবি সমাজমাধ্যমে দেন শোয়েব। তার পরেই জানা যায়, সানিয়া ও শোয়েবের বিচ্ছেদ হয়ে গিয়েছে। সানিয়ায় নাকি শোয়েবের সঙ্গে বিচ্ছেদ করেছেন। এই ঘটনার পরে সংবাদমাধ্যমে মুখ খোলেন শোয়েবের বোন। তিনি জানান, শোয়েবের পরকীয়ায় অতিষ্ঠ হয়েই নাকি তাঁকে বিচ্ছেদ দিয়েছেন সানিয়া। একে অপরের বিরুদ্ধে অবশ্য সানিয়া বা শোয়েব কোনও অভিযোগ করেননি।
তথ্যসূত্র: আনন্দবাজার অনলাইন