পাল্টা অভিযানে ১৫ পাক সেনাকে খতম করল বিএসএফ

আপডেট: অক্টোবর ২৮, ২০১৬, ১১:০০ অপরাহ্ণ


সোনার দেশ ডেস্ক
বৃহস্পতিবার বিকেল থেকে শুক্রবার বেলা পর্যন্ত রাজৌরির নওসেরা সেক্টরে পাক সেনার গোলাবর্ষণের পাল্টা জবাব দিল ভারত৷ নিয়ন্ত্রণরেখায় সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙ্ঘন করার খেসারত দিতে হল পাকিস্তানকে৷ হামলার পাল্টা জবাবে গত ৭ দিনে বিএসএফ অন্তত ১৫ জন পাক সেনাকে খতম করেছে বলে শুক্রবার জানাল কেন্দ্রীয় সীমান্তরক্ষা বাহিনী বা বিএসএফ৷
বৃহস্পতিবারও এক পাক রেঞ্জারকে নিকেশ করেছে সেনা, আহত করেছে আরও একজনকে৷ গতকাল রাত থেকে সাম্বা, হীরানগর, পুঞ্চ, কাঠুয়াতে রাতভর গুলিবৃষ্টি চালিয়েছে পাক সেনা৷ বিএসএফের ২৪টি সেনা ছাউনি লক্ষ্য করে গুলি চালায় পাক রেঞ্জার৷ পাকিস্তানের লাগাতার হামলার মোক্ষম জবাব দেন ভারতীয় জওয়ানরা৷ বিএসএফের মর্টার হামলায় গুঁড়িয়ে গিয়েছে পাক সেনাছাউনিও৷ এরপরই পিছু হটে যায় পাক সেনা৷ বিনা প্ররোচনায় পাকিস্তানের হামলার যোগ্য জবাব দেয়ার জন্য বিএসএফকে নির্দেশ দিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং৷
অন্যদিকে আর এস পুরা সেক্টরের গ্রাম লক্ষ্য করে গোলাবর্ষণ করে পাক সেনা৷ তারা স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র, ৮২ ও ১২০ মিলিমিটারের মর্টার দিয়ে হামলা চালাচ্ছে বলে খবর৷ স্প্লিন্টার লেগে গুরুতর জখম হয়েছে এক শিশু৷ গুরুতর জখম অবস্থায় তাকে জম্মুর একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে৷ এদিন সেনাবাহিনীর মুখপাত্র বলেন, “সুন্দরবনি, পাল্লানওয়ালা-সহ বেশ কিছু সীমান্তবর্তী গ্রাম লক্ষ্য করে গোলাবর্ষণ করেছে পাকিস্তানি সেনা৷ বারবার সংঘর্ষবিরতি চুক্তি লঙঘন করে পাকিস্তানের হামলা আর সহ্য করছে না ভারত৷ বিএসএফ ও সেনাবাহিনীর অন্যান্য দল এই হামলার যোগ্য জবাব দিচ্ছে৷ পাক রেঞ্জারের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেলেও ভারতীয় জওয়ানদের হতাহতের খবর নেই৷” তবে সীমান্তবর্তী এলাকায় যুদ্ধ পরিস্থিতির জন্য সতর্ক করা হয়েছে স্থানীয় গ্রামবাসীদের৷ সেনাবাহিনী গ্রামবাসীদের নিরাপদ দূরত্বে সরিয়ে নিয়ে যায়৷ আপাতত তাঁদের একটি ক্যাম্পে রাখা হয়েছে৷ দীপাবলির সময় হামলার আতঙ্কে ঘর-বাড়ি ছেড়ে সেনাশিবিরে আশ্রয় নিয়েছেন বহু কাশ্মীরি৷-সংবাদ প্রতিদিন