পা-ার পেটে অস্ত্রোপচার

আপডেট: নভেম্বর ২৮, ২০১৬, ১০:৫৯ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক



চিনের স্তন্যপায়ী পা-ার প্রিয় খাদ্য বাঁশপাতা আর তার কন্দ। অলস এই প্রাণীটির বাস দেশটির পাহাড়ি ঢালের ঘন বাঁশবনগুলোতে। ভালুকের মতো দেখতে হলেও পান্ডা বড়ই নিরীহ প্রাণী। শ্বাপদকুলের অন্তর্গত হলেও পা-ার খাদ্যের ৯৯ ভাগই বাঁশ পাতা। তবে তৃণভোজী প্রাণীদের মতো খাদ্যনালী না থাকায় এবং ক্ষুদ্রান্ত্র ছোট হওয়ায় প্রায় সময়ই এদের খাওয়া নিয়েই ব্যস্ত থাকতে হয়। খাদ্যনালী না থাকলেও অবশ্য পা-ার বদহজমের কথা কমই শোনা গেছে।
তবে বদহজমের কারণে সম্প্রতি এক পা-া শিশুকে ছুরি কাঁচির নিচে যেতে হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটন চিড়িয়াখানায় থাকা বেই বেই নামের ওই পা-াটি বৃহস্পতিবার হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়ে। পা-া শিশুটি পেট ব্যথার বিষয়টি ইশারা ইঙ্গিতে তা বোঝাতেও চেয়েছে। কাজেই চিকিৎসক ডাকা হয় পা-াটিকে দেখতে।
পরীক্ষার পর চিকিৎসকেরা জানান পা-াটির পেটে বাঁশের কন্দ আটকে গেছে। কাজেই চিড়িয়াখানার অন্যতম আকর্ষণ পা-াটির অস্ত্রোপচারের উদ্যোগ নেয় কর্তৃপক্ষ। শনিবার চিড়িখানা কর্তৃপক্ষ জানায়, পা-াটির পেট থেকে লেবু’র আকৃতির বাঁশের টুকরো বের করা হয়েছে। বর্তমানে এক বছর বয়সি বেই বেই’এর শারীরিক অবস্থা বেশ ভালো বলেও জানানো হয়।
চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, বেই বেই এর শুধু পেটব্যথা নয় বমি বমি ভাবও ছিল। তাছাড়া খাওয়া দাওয়া ফেলে পা-াটি স্বাভাবিকের চাইতে বেশি ঘুমাতে শুরু করে। অবস্থা বুঝতে পেরেই দ্রুত অস্ত্রোপচারের উদ্যোগ নেন চিকিৎসকেরা।
ওয়াশিংটন ডিসি’র স্মিথসোনিয়ান জাতীয় চিড়িয়াখানার পরিচালক ডেনিস কেলি জানিয়েছেন, বেই বেই’এর অবস্থা এখন ভালো। তাকে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। এসময় তিনি পা-াটির সুস্থতার পেছনে জড়িত সবাইকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, অস্ত্রোপচারের পর সারারাত তাকে পানি পান করতে দিলেও এখন সে মিষ্টি আলু’র মতো হালকা খাবার খাচ্ছে।
বেই বেই’এর জন্ম ২০১৫ সালের ২২ আগস্ট মাসে। তার জন্মের মুহুর্তটি চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষ সরাসরি সম্প্রচারের ব্যবস্থাও করে। ফলে ওই মুহূর্তটির মাধ্যমে বিশ্বের অনেকের চোখে পরিচিত হয়ে ওঠে বেই বেই। চিন এবং যুক্তরাষ্ট্রের ফার্স্ট লেডিদ্বয়ের পছন্দে পা-া শিশুটির এই নাম রাখা হয়। চিনের বেই বেই শব্দের অর্থ হচ্ছে ‘বহু মূল্যবান’।