পুতিনকে ‘যোগ্য প্রতিপক্ষ’ বলে স্বীকার করে নিলেন বাইডেন

আপডেট: জুন ১৬, ২০২১, ১:২১ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


আর কয়েক ঘন্টার অপেক্ষা। এরপরই বহু কাঙ্ক্ষিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের বৈঠক। দুই নেতার শীর্ষ এ সম্মেলন ঘিরে আন্তর্জাতিক রাজনীতির পরবর্তী দিনগুলোর ভবিষ্যৎ নির্ভর করছে। তবে বৈঠকের আগেই রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনকে ‘যোগ্য প্রতিপক্ষ’ বলে স্বীকার করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট।
গোটা বিশ্বের নজর বিশ্বের দুই শীর্ষ নেতার বৈঠকের দিকে। বৈঠকের আগে সাংবাদিকদের সম্মুখীন হয়ে বাইডেন বলেন, পুতিন যোগ্য প্রতিপক্ষ। তবে রাশিয়া মানবাধিকারে বিশ্বাস করে না, নাভালনি ইস্যু যার প্রমাণ এমন কথাও ছুড়েছেন এই ডেমোক্র্যাট নেতা। বাইডেন আরও বলেন, মস্কোকে সহযোগিতার পথ বেছে নিতে হবে। তারা সেটি বেছে নেবে কিনা সেটিই এখন দেখার বিষয়। এদিকে ন্যাটো জোটের নেতাদের সঙ্গেও তিনি এ বিষয়টি নিয়ে কথা বলেছেন। তারাও বিভিন্ন পরামর্শ দিয়েছেন। তাও তুলে ধরবেন বাইডেন।
সুইজারল্যান্ডের জেনেভায় দুই প্রেসিডেন্টের বৈঠক। নাভালনি ইস্যু ছাড়াও, ইউক্রেন ইস্যু, সাইবার হামলা ও রাশিয়ার নতুন পারমাণবিক অস্ত্র মোতায়েনের পদক্ষেপ নিয়ে উত্তেজনাকর পরিস্থিতির মধ্যে প্রথম সরাসরি বৈঠক করতে যাচ্ছেন দুই পরমাণু শক্তিধর দেশের প্রধান।
কয়েকদিন আগেই রাশিয়ার বিরোধী নেতা অ্যালেক্সেই নাভালনিকে বিষ প্রয়োগ করে খুনের চেষ্টা প্রসঙ্গে মার্কিন প্রেসিন্ডেন্ট বাইডেন, পুতিনকে খুনি বলে আখ্যা দিয়েছিলেন। বাইডেনের মন্তব্যের কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছিল মস্কো। ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেশকভ বলেছিলেন এই মন্তব্যের মাধ্যমে স্পষ্ট হয়ে গেল যে, তিনি আমাদের সঙ্গে সম্পর্ক ভাল করতে আগ্রহী নন। আমরাও এ বার তাহলে সেই পথেই হাঁটব।
হোয়াইট হাউসে পালাবদলের পরে মস্কো-ওয়াশিংটন সম্পর্ক অনেকটাই তলানিতে ঠেকেছে। প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের রসায়ন ভালো থাকলেও বর্তমান প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে সম্পর্ক তেমন বন্ধুত্বপূর্ণ নয়। এমন সম্পর্কের দোলাচলের মধ্যে ১৬ জুন জেনেভাতে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে সাক্ষাত করতে চলেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।
তথ্যসূত্র:  kolkata24x7

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ