প্রধানমন্ত্রীর সভা সফল করতে ঐক্যবদ্ধ হোন : লিটন

আপডেট: সেপ্টেম্বর ৬, ২০১৭, ১:১৪ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক


সভায় বক্তব্য দেন আ’লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন-সোনার দেশ

রাজশাহীর পবাতে প্রধানমন্ত্রীয় জনসভা সফল করার লক্ষ্যে আ’লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও নগর সভাপতি এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন, প্রধানমন্ত্রীর সভা সফল করার জন্য সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। এজন্য রাজশাহীতে আ’লীগের নেতাকর্মীদের সর্বোচ্চ সতর্ক থাকতে হবে। যাতে কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনার সম্মুখিন না হতে হয়। রাজশাহীর আ’লীগের নেতাকর্মীদের সুনাম রয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় লক্ষ¥ীপুর মোড়ের মাস্টার শেফ বাঙলা রেস্তোরায় জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে বর্ধিতসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
সাবেক মেয়র লিটন বলেন, রাজশাহীর মানুষকে নৌকা প্রতীকের প্রতি আত্মবিশ্বাসী হতে অনুপ্রেরণা যোগাতে হবে। প্রধানমন্ত্রীর আগমন রাজশাহীবাসীর জন্য বড় পাওয়া। সম্প্রতি রাসিক মেয়র নির্বাচনে আ’লীগের নেতাকর্মীদের সর্বোচ্চ ভূমিকা রাখার জন্য আহ্বান জানান লিটন। রাজশাহীর পবা উপজেলার খড়খড়ির বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় মাঠে প্রধানমন্ত্রী জনসভা সফল করার লক্ষে জেলা আ’লীগের বর্ধিতসভা সভায় সভাপতিত্ব করেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাংসদ ওমর ফারুক চৌধুরী।
সভায় বক্তব্য দেন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোহা. আসাদুজ্জামান আসাদ, সহ-সভাপতি সাংসদ বেগম আখতার জাহান, আব্দুল মজিদ সরদার, যুগ্মসাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট লায়েব উদ্দিন লাভলু, অধ্যক্ষ মোস্তাফিজুর রহমান মানজাল, সাংসদ আয়েন উদ্দিন, জেলা যুবলীগের সভাপতি আবু সালেহ, সাধারণ সম্পাদক খালেদ ওয়াশি কেটু, জেলা মহিলা আ’লীগের সভাপতি মর্জিনা পারভীন, জেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি আব্দুল্লাহ খান, জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক তাজবুল ইসলাম, জেলা মহিলা যুবলীগের সভাপতি নার্গিস শেলী, সাধারণ সম্পাদক বিপাশা খাতুন প্রমুখ।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অধ্যাপিকা জিনাতুন নেসা তালুকদার, বদরুজ্জামান রবু, অনিল কুমার সরকার, রুস্তম আলী, যুগ্মসাধারণ সম্পাদক, কামরুজ্জামান চঞ্চল, সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম আসাদুজ্জামান, আলফোর রহমান, আহসান-উল-হক মাসুদ, আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাড. এজাজুল হক মানু, জেলা আ’লীগের প্রচার সম্পাদক ও গোদাগাড়ী পৌরসভার মেয়র মনিরুল ইসলাম বাবু, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক অ্যাড. এহসান আহম্মেদ শাহিন, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক আওম নূরুল আলম হিরু মাস্টার, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক অধ্যাপক শামসুজ্জামান খান, শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিষয়ক সম্পাদক মোঃ এমদাদুল ইসলাম মাষ্টার, জেলা আওয়ামী লীগের ধর্ম সম্পাদক মাওলানা সিরাত উদ্দিন শাহীন, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক শরিফ খান, উপ-দফতর সম্পাদক প্রভাষক শরিফুল ইসলাম প্রমুখ।
সভা শেষে প্রধানমন্ত্রীর জনসভা সফল করার জন্য প্রতিটি উপজেলায় বর্ধিত সভা করার সিদ্ধান্ত হয়। আগামী ৭ সেপ্টেম্বর রাজশাহী জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের যৌথ সভা হবে। ফেস্টুন, ব্যানারে বঙ্গবন্ধু, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং জয়ের ছবি ছাড়া অন্য কারোও ছবি ব্যবহার করা যাবে না। নিজ নিজ সংগঠনের নাম ব্যবহার করতে পারবে। প্রতিটি উপজেলা ও ইউনিয়নে প্রচার মিছিল করতে হবে ইত্যাদি।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ