প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের মহাসড়কে বাংলাদেশ – রাসিক মেয়র

আপডেট: নভেম্বর ১৭, ২০১৯, ১:০১ পূর্বাহ্ণ

বগুড়া প্রতিনিধি


বগুড়া পৌর আ’লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন আ’লীগের কেন্দ্রিয় সদস্য ও রাজশাহী সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন-সোনার দেশ

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সদস্য ও রাজশাহী সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন, ’৯০ এর পর বিএনপি ক্ষমতায় এসে কৃষক হত্যা, শ্রমিক হত্যাসহ দেশে মিল-কারখানা বন্ধ করে দিয়েছিল। খালেদার আমলে এশিয়ার বৃহৎ পাটকল আদমজী বন্ধ করে হাজার হাজার শ্রমিক বেকার করেছিল। ওই সময়ে বাংলাদেশে পাটকল বন্ধ হলেও ভারতের কোলকাতাসহ পশ্চিবঙ্গে ১৭টি পাটকল চালু হয়। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি, বিদ্যুৎ উৎপাদন, তথ্য প্রযুক্তি, যোগাযোগ ব্যবস্থার ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে উন্নয়নের মহাসড়কে বাংলাদেশ। এখন বাংলাদেশ আর তলাবিহীন ঝুড়ি নয়। আমরা নিজেদের অর্থায়নে পদ্মা সেতু ছাড়াও মেগা প্রজেক্ট করা করা হচ্ছে।
তিনি গতকাল শনিবার দুপুরে বগুড়া পৌর আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।
সংগঠনের পৌর কমিটির আহবায়ক রফি নেওয়াজ খান রবিনের সভাপতিত্বে সম্মেলন উদ্বোধন করেন জেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ডা. মকবুল হোসেন।
অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মজিবর রহমান মজনু, বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন, জেলা আ’লীগের সহ সভাপতি অ্যাড. মকবুল হোসেন মুকুল, যুগ্ম সম্পাদক রাগেবুল আহসান রিপু, টি জামান নিকেতা, মঞ্জুরুল আলম মোহন, সাংগঠনিক সম্পাদক প্রদীপ কুমার রায়, আসাদুর রহমান দুলু, জাকির হোসেন নবাব, সুলতান মাহমুদ খান রনি, আল রাজি জুয়েল, আলমগীর বাদশা, আবদুস সালাম, শুভাশীষ পোদ্দার লিটন, নাইমুর রাজ্জাক তিতাস, লাইজিন আরা লীনা প্রমুখ। এসময় পৌর কমিটির যুগ্ম আহবায়ক শাহাদৎ হোসেন শাহীন, মিজানুর রহমান বকুল, শেখ শামীম, ওবায়দুল হাসান ববি, এ্যাডনিস তালুকদার বাবুসহ সংগঠনের জেলা ও পৌর শাখার বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
এসময় প্রধান অতিথি আরো বলেন, ভারতের কাছে থেকে আওয়ামী লীগ ন্যায্য হিস্যা নেয়ার চেষ্টা করে আর বিএনপি আঁতাত করে। বিএনপি জোট মিথ্যাচার করে সবসময়। তাদের সময়ে দেশ পিছিয়ে যায় আর আওয়ামী লীগ দেশকে সামনে এগিয়ে নেয়।
সকালে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন ও বেলুন উড়িয়ে সম্মেলনের উদ্বোধন করা হয়। এপর কোরআন ও গীতা পাঠের মধ্যদিয়ে শুরু হয় মূল কার্যক্রম। সম্মেলন উপলক্ষে শহরের শহীদ খোকন পার্ক সাজানো হয় বর্ণাঢ্যরূপে। সকাল থেকে বিভিন্ন ওয়ার্ডের নেতা কর্মীরা মিছিল নিয়ে সম্মেলন স্থলে আসতে শুরু করে। একে একে কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায় খোকন পার্কসহ এর আশেপাশের রাস্তা। শহরের ২১ টি ওয়ার্ডের নেতা কর্মীদের পাশাপাশি ছাত্রলীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগের পক্ষ থেকেও মিছিল নিয়ে সম্মেলন কেন্দ্রে আসে। এসময় জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু স্লোগানে মুখরিত হয়ে উঠে শহরের প্রাণকেন্দ্র সাতমাথা শহীদ খোকন পার্কসহ আশেপাশের এলাকা।
বিকেলে জেলা পরিষদ মিলনায়তনে শুরু হয়ে ২য় অধিবেশন। সেখানে প্রধান অতিথি, উদ্বোধকসহ আওয়ামী লীগ নেতারা উপস্থিত ছিলেন। তাদের উপস্থিততিতে পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদে ভোট গ্রহণ করা হয়। এ খবর লেখা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ চলছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ