ফেসবুকের কল্যাণে ১২ দিন পর ঠিকানা খুঁজে পেল হারিয়ে যাওয়া শিশুটি

আপডেট: এপ্রিল ১৭, ২০২১, ৮:৫১ অপরাহ্ণ

ঈশ্বরদী প্রতিনিধি:


হারিয়ে যাওয়ার ১২ দিন পর পুলিশের উদ্যোগে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে ঠিকানা খুঁজে পেয়েছে হারিয়ে যাওয়া শিশু সাদিকুল ইসলাম রুদ্র। শুক্রবার তাকে তার বাবা-মায়ের নিকট হস্তান্তর করে ঈশ্বরদী থানা পুলিশ।
পুলিশ সূত্র জানায়, গত ৫ এপ্রিল সন্ধ্যায় ঈশ্বরদীর মুলাডুলি রেলওয়ে স্টেশনে কান্নারত ঘোরাঘুরি করার সময় ৭/৮ বছর বয়সি ওই শিশুকে উদ্ধার করা হয়। শিশুটি তার নাম রুদ্র এবং বাড়ি ময়মনসিংহ ছাড়া আর কোনো ঠিকানা বলতে পারেনা। শিশুটি জানায়, তার মায়ের সঙ্গে ঢাকা যাওয়ার সময় ভুল ট্রেনে উঠে সে মাকে হারিয়ে ফেলে এখানে এসে পড়েছে। ঈশ্বরদী থানার ওসি ওই শিশুকে পুলিশ হেফাজতে রেখে ঘটনাটি ফেসবুকের মাধ্যমে এবং নানাভাবে ময়মনসিংহের বিভিন্ন থানায় খোঁজ নেয়। এরই মধ্যে গত সোমবার ফেসবুকের মাধ্যমে জানতে পেরে ত্রিশাল উপজেলার এক কর্মকর্তা শিশুটির নাম ঠিকানা খুঁজে বের করে ঈশ্বরদী থানার ওসিকে জানান। শিশুর নাম সাদিকুল ইসলাম রুদ্র, তার পিতা সুলতান মাহমুদ, গ্রাম- কুষ্টিয়া প্রথমখন্ড, থানা-ত্রিশাল, জেলা ময়মনসিংহ।
ঈশ্বরদী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আসাদুজ্জামান জানান, ত্রিশাল থানার মাধ্যমে ঠিকানা নিশ্চিত হয়ে খবর দেওয়া হলে শিশুটির বাবা-মা ঈশ্বরদী থানায় আসে। তাদের নিকট শিশুটিকে তুলে দেওয়া হয়। হারিয়ে যাওয়া শিশু রুদ্রকে তার বাবা-মায়ের নিকট তুলে দিতে যারা সহযোগিতা করেছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ওসি। হারিয়ে যাওয়ার ১২ দিন পর সন্তানকে ফিরে পেয়ে আনন্দে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন শিশুটির বাবা-মা। তারা ঈশ্বরদী থানার পুলিশসহ সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।