বঙ্গবন্ধু হত্যার ক্ষেত্র তৈরি করেছিল জাসদ: কাজী ফিরোজ রশিদ

আপডেট: জানুয়ারি ২৮, ২০২২, ৫:৫৪ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক:


জাসদের বিরুদ্ধে বঙ্গবন্ধু হত্যার ক্ষেত্র তৈরির অভিযোগ তুললেন জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্য কাজী ফিরোজ রশীদ। বৃহস্পতিবার (২৭ জানুয়ারি) রাতে জাতীয় সংসদের অধিবেশনে রাষ্ট্রপতির দেওয়া ভাষণের ওপর আনা ধন্যবাদ প্রস্তাবের আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এ অভিযোগ করেন।

কাজী ফিরোজ রশিদ বলেন, হেফাজতে ইসলামকে জঙ্গি বানাইছে ইনু সাহেব। জঙ্গি কাকে বলে? আন্দোলন তো মানুষই করে। আন্দোলন করবে, আন্দোলন অনেক সময় সহিংসতায় চলে যায়। কিন্তু তারা জঙ্গি নয়, জঙ্গি হচ্ছে সশস্ত্র বিপ্লব যারা করে, সরকারকে হঠানোর জন্য, যেটা ইনু সাহেবরা করেছিলেন। সেদিন জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) যদি ক্ষেত্র তৈরি না করত বঙ্গবন্ধুকে কেউ হত্যা করতে পারত? বঙ্গবন্ধুকে কেউ এভাবে নির্মমভাবে হত্যা করার দুঃসাহস পেত? সমস্ত ক্ষেত্র তারা তৈরি করেছিল। আজকে বলে আমরা কিছু জানি না। আজকে বঙ্গবন্ধুর পক্ষে কথা বলেন।

তিনি বলেন, জাসদ ১৯৭৩ সাল থেকে ১৯৭৫ সাল পর্যন্ত এ দেশে হাজার হাজার যুবলীগ, আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ কর্মীদের হত্যা করেছে। অনেক পুলিশ ফাঁড়ি তারা দখল করেছে, পুলিশ ফাঁড়ি লুট করেছে, থানা লুট করেছে, ট্রেজারি লুট করেছে। ঈদের জামাতে আমাদের আওয়ামী লীগের এমপিদের তারা হত্যা করেছে দিনের বেলায়। ঈদের জামাতে বসা অবস্থায় হত্যা করেছে।

তারা যদি এখন আরেকটি সংগঠনকে জঙ্গি বলে সেটা মানায়? জাসদ যদি ক্ষেত্র তৈরি না করত তাহলে বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করতে পারত? সেদিন আমি ঢাকা যুবলীগের প্রধান ছিলাম। তাদের একটা পত্রিকা ছিল গণকণ্ঠ। সেই পত্রিকা পড়ে দেখেন সেদিন কিনা বানাইছে আমাদের। চোর-ডাকাত সবকিছু বানাইছে তারা। স্বাধীনতার শত্রু ওই পত্রিকা তারা পড়ত। সমস্ত মানুষকে তারা ক্ষিপ্ত করে তুলেছিল। এ জাসদ আজকে গণতন্ত্রের কথা বলে, বঙ্গবন্ধুর কথা বলে।

বিএনপি-জামায়াতের নাম উল্লেখ না করে কাজী ফিরোজ রশিদ বলেন, এতদিন তারা লবিস্ট নিয়োগ করল, আমরা কেন পাল্টা লবিস্ট নিয়োগ করতে পারলাম না? এ ষড়যন্ত্র মানব না। এত কষ্ট করে যে স্বাধীনতা এনেছি সেই স্বাধীনতা এভাবে কেউ নষ্ট করবে এটা আমরা চাই না। স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী বাজি ফোটে না। অথচ ইংরেজি নববর্ষে ছাদে ছাদে বাজি ফুটেছে।
তথ্যসূত্র: বাংলানিউজ