বদলগাছীতে পুলিশের সহায়তায় হারানো বাবাকে ফিরে পেল সন্তান

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ২, ২০২০, ১২:৩৪ পূর্বাহ্ণ

বদলগাছী প্রতিনিধি


নওগাঁর বদলগাছী থানা পুলিশের সহযোগিতায় মানসিক ভারসাম্যহীন আবদুুল মালেককে (৬০) ফিরে পেল সন্তান মঞ্জুরুল। গতকাল শনিবার দুপুর ১২টায় থানা পুলিশ আব্দুল মালেককে তার সন্তান ও পরিবারের লোকজনের হাতে তুলে দেয়।
থানা সূত্রে জানা যায়, গত বুধবার সন্ধ্যায় থানার সামনের মাইক্রোস্ট্যাণ্ডে আব্দুল মালেককে ভারসাম্যহীন অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয় লোকজন থানায় খবর দেয়। থানা পুলিশ তাকে উদ্ধার করে তৎক্ষণাত হাসপাতালে ভর্তি করে দেয়। আবদুল মালেকের এলোমেলো কথা শুনে থানা পুলিশ বুঝতে পারে এটা ময়মনসিংহের কোনো অঞ্চলের ভাষা হবে। পরে থানা পুলিশ মালেকের ছবি তুলে ময়মনসিংহের সকল থানায় পাঠিয়ে দেয়। ময়মনসিংহের সকল থানা নিজ নিজ ইউনিয়নে সেই ছবি পাঠালে ময়মনসিংহ সদরের ২নম্বর কুষ্টিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবদুল মালেককে চিনতে পেরে তার পরিবারকে খবর দেয়। পরে মালেকের ছেলে মঞ্জুরুল বদলগাছী থানায় যোগাযোগ করে তার বাবাকে ফিরে পায়।
বাবাকে ফিরে পেয়ে আবেগ আপ্লুত মঞ্জুরুল জানায়, তিন মাস আগে বাড়ি থেকেই হারিয়ে যায় আমার বাবা। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও পাইনি। অবশেষে বাবাকে পাওয়ার আশা ছেড়েই দিয়েছিলাম। কিন্তু বদলগাছী থানা পুলিশের সহযোগিতায় বাবাকে ফিরে পেলাম। তাদেরকে অসংখ্য ধন্যবাদ জানাই।
বদলগাছী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত ডাক্তার ডা.মাহফুজ জানান, আবদুল মালেক মানসিক ভারসাম্যহীন। তবে তার অন্য কোন শারিরিক সমস্যা নেই। কয়েকদিন বিশ্রাম নিলেই সুস্থ হয়ে যাবে।
বদলগাছী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা চৌধুরী জোবায়ের আহাম্মদ বলেন, আবদুল মালেকের ছেলে মঞ্জুরুল তার বাবার ভোটার আইডি কার্ড নিয়ে এসেছে। এছাড়াও আমরা প্রয়োজনীয় জিজ্ঞাসাবাদ করে যাচাই করে তার বাবাকে হাতে তুলে দিয়েছি। আবদুল মালেককে তার পরিবারের কাছে ফিরিয়ে দিতে পেরে আমরা খুবই আনন্দিত।