‘বন্ধু’ বাংলাদেশকে ইদের উপহার হিসেবে ১০টি রেল ইঞ্জিন দিচ্ছে ভারতের

আপডেট: জুলাই ২৬, ২০২০, ১২:৪২ অপরাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক :


দিল্লিতে মোদি, ঢাকায় হাসিনা। সাতের দশকে ইন্দিরা-মুজিব জুটির পর ভারত-বাংলাদেশ সম্পর্কে এরথেকে বেশি তাৎপর্যপূর্ণ সময় ও সমীকরণ খুব কম দেখা গিয়েছে। উত্তর-পূর্ব ভারতে সন্ত্রাসদমন থেকে শুরু করে বাংলাদেশকে চিনা প্রভাবমুক্ত রাখতে এই জুটির অবদান অনস্বীকার্য। এবার সেই সম্পর্ক আরও মজবুত করে বন্ধু ঢাকাকে ইদের উপহার হিসেবে ১০টি রেল ইঞ্জিন দিল নয়াদিল্লি।
জানা গিয়েছে, ইদ উপলক্ষে বাংলাদেশকে ১০টি ব্রডগজ লোকোমোটিভ বা রেল ইঞ্জিন দিচ্ছে ভারত। ভারতীয় রেলের দেওয়া এই ইঞ্জিনগুলি আগামী সোমবার (২৭ জুলাই) বাংলাদেশ রেলকে হস্তান্তর করা হবে। ইঞ্জিনগুলিকে ইদ-উল-আজহার আগে ‘উপহার’ হিসেবে দেখছেন বাংলাদেশের রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন। রেলমন্ত্রী সংবাদমাধ্যমে জানান, আগামী ২৭ জুলাই ভারতীয় রেল আমাদের ১০টি ব্রডগজ রেল ইঞ্জিন উপহার স্বরুপ দেবে। তিনি বলেন, “ওইদিন দুপুর আড়াইটে নাগাদ ভারতের বিদেশমন্ত্রী ও ভারতের রেলমন্ত্রী এবং আমাদের বিদেশমন্ত্রী ও আমি নিজে ভিডিও কনরফারেন্সের মাধ্যমে এ ইঞ্জিন উপহার অনুষ্ঠানে অংশ নেব। তারা দিল্লি থেকে, আর আমরা ঢাকা থেকে ভিডিও কনফারেন্স করে এই ইঞ্জিন হস্তান্তর অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহণ করব।” ইঞ্জিনগুলি হস্তান্তরে ভারতীয় রেল কর্তৃপক্ষ গেদে সীমান্ত ওপারে আনুষ্ঠানিকতা পালন করা হবে বলে জানান বাংলাদেশ রেলমন্ত্রী।
উল্লেখ্য, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের মসনদে বসার পর থেকেই ভারত বিরোধী শক্তিরগুলির উপর লাগাম টেনেছেন। বাংলাদেশের জমিতে সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপ চলবে না বলে সাফ করে দিয়েছেন তিনি। একইভাবে, রোহিঙ্গা ইস্যু থেকে শুরু করে একাধিক বিষয়ে বাংলাদেশের পাশে দাঁড়িয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সেই কথা মাথায় রেখেই এবার ঢাকার সঙ্গে সম্পর্ক মজবুত করছে বেজিং। সেই চেষ্টায় সাড়া মিলেছে হাসিনা সরকারের তরফেও। ফলে এবার পরিস্থিতি সামাল দিতে তড়িঘড়ি মাঠে নেমেছে নয়াদিল্লি। বাংলাদেশে ভারতের নয়া রাষ্ট্রদূত হিসেবে নিযুক্ত হচ্ছেন দুঁদে কুটনীতিবিদ বিক্রম ডরাইস্বামী। বর্তমানে এই পদে রয়েছেন রিভা গাঙ্গুলী দাস। আগামী সেপ্টেম্বর মাসে বিদেশমন্ত্রকের সচিব (পূর্ব) হয়ে নয়াদিল্লি ফেরত আসবেন তিনি। বিশ্লেষকদর মতে ইদের উপহার দিয়ে ঢাকাকে ফের বন্ধুত্বের কথা মনে করিয়ে দিল নয়াদিল্লি।
তথ্যসূত্র: সংবাদ প্রতিদিন