বর্ষা মৌসুমে সুস্থ ত্বক

আপডেট: জুলাই ২, ২০১৭, ১২:২১ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


ঝুমবৃষ্টিতে ভিজতে ভিজতে বাসায় ফেরা, বেশ আনন্দের। তারপর ঠা-া লাগার হাত থেকে বাঁচাতে ভালোভাবে নিজেকে শুকিয়ে এক কাপ গরম চা। জ্বর-কাশি না হয় হল না। তবে চর্মরোগ প্রতিরোধ করবেন কীভাবে?
বাদলা দিন নিয়ে যতই কবিতা থাকুন, মৌসুমটা মোটেই অত কাব্যিক নয়। এই সময়ে চামড়ায় ছত্রাকে সংক্রমণ বাড়তে পারে। যার অন্যতম কারণ আবহাওয়ায় ভেজাভাব।
ভারতের ‘প্রাইভ স্কিন অ্যান্ড ওয়েলনেস ক্লিনিক’য়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও ত্বক বিশেষজ্ঞ অমিত ভাসিন এবং হোমিও অ্যাসথেটিক ফিজিশিয়ান জতিন মিত্তাল এই মৌসুমে ত্বকের কিছু স্বাভাবিক সমস্যা সম্পর্কে খেয়াল রাখার পরামর্শ দেন। * বর্ষামৌসুমে বাতাসে আর্দ্রতার পরিমাণ বেশি থাকে। ফলে ত্বকে তেলও বেশি নিঃসৃত হয়। আর অতিরিক্ত তেলের কারণে নানান ধরনের ত্বকের সমস্যা হতে পারে। তেলতেলে ভাব থেকে ত্বকে চুলকানি ও জ্বালাভাব হতে পারে। পাশাপাশি ছত্রাক ও ব্যাক্টেরিয়ার সংক্রমণ বৃদ্ধি পাওয়ার ঝুঁকিও থাকে এই মৌসুমে।
অনেকেই এই বিষয়টাকে আমলে নেন না। আবার নারীর ত্বকের সমস্যায় চিকিৎসকের কাছে যাওয়ার পরিবর্তে পার্লারে গিয়ে ত্বক পরিচর্যা করান।
তবে মনে রাখতে হবে চর্মরোগের জন্য বিউটি পার্লার নয়, যেতে হবে চর্মরোগ বিশেষজ্ঞের কাছে।
* আবহাওয়া মেঘলা থাকলেও বর্ষাকালে অনেক সময় গুমোট গরম লাগে। এ কারণে অতিরিক্ত ঘাম হয়। পাশাপাশি পানি কম পান করার ফলে পানিশূন্যতার মতো সমস্যাও দেখা দেয়। আর রোদের তাপ থেকে হয় ত্বকের ক্ষতি।
রোদ এবং হঠাৎ বৃষ্টি থেকে বাঁচতে ছাতা সঙ্গে রাখা উচিত। আর বৃষ্টিতে ভিজে গেলেও ঘরে ফিরেই পরিষ্কার পানি দিয়ে গোসল করে শুকনা কাপড় পরতে হবে।
* যদি ত্বকে সংক্রমণ হয়ে যায় তাহলে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে অ্যান্টি-ফাংগাল পাউডার ব্যবহার করতে হবে। যেন সংক্রমণ আরও না ছড়ায়। কখনও ভেজা কাপড় বেশি সময় পরে থাকা উচিত নয়। পা খোলা জুতা পরুন যেন ভিজে গেলেও পা স্যাঁতস্যাঁতে না হয়ে থাকে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ