বাগমারায় অবৈধ পুকুরখনন করায় যুবলীগ নেতার জরিমানা

আপডেট: মে ২৫, ২০২৪, ৯:২২ অপরাহ্ণ

বাগমারা প্রতিনিধি:


বাগমারায় অভিযান চালিয়ে যুবলীগ নেতা আসাদুল ইসলামের অবৈধ পুকুরখনন বন্ধ করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা।
এ সময় ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে তিন ফসলি কৃষি জমিতে অবৈধভাবে পুকুর খননের দায়ে ড্রেজারের (ভেকু) চালকসহ মোট ছয় জনকে তিন লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।
জানা যায়, তাহেরপুর পৌর যুবলীগের-আহবায়ক আসাদুল ইসলাম ও দেলোয়ার হোসেন হামিরকুৎসা ইউনিয়ন’র চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেনের ছেলে সংশ্লিষ্ট দপ্তরের অনুমতি ছাড়ায় ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে শ্রীপতীপাড়া (শান্তিপুর) গ্রামে অবৈধভাবে পুকুর খনন কাজ শুরু করেন।

এছাড়া ঝিকরা ইউনিয়নের পুকুর খনন চক্রের মূল হোতা আমজাদ হোসেন ও আব্দুর রাজ্জাক মন্ত্রণালয়ের নির্দেশ উপেক্ষা করে নামকান গ্রামে কৃষিজমিতে জোরপূর্বক পুকুর খনন কাজ শুরু করেন। এতে এলাকার কৃষকরা বাধা দিলে তাদের হুমকি-ধামকি দিয়ে ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে অবৈধভাবে পুকুর খনন কাজ চালিয়ে যেতে থাকেন।

এই ঘটনায় কৃষকদের পক্ষে ঝিকরা ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ অবৈধভাবে কৃষি জমিতে পুকুর খনন বন্ধের দাবিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারি কমিশনারের (ভূমি) কাছে পৃথকভাবে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। ওই অভিযোগে শরিফুল ইসলাম, রমজান আলী, সাহেব আলী ও আশরাফুল ইসলামসহ এলাকার ১৯ জন কৃষকেরও স্বাক্ষর রয়েছে।

বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাহবুবুল আলম বলেন, অভিযোগের প্রেক্ষিতে হামিরকুৎসা ও ঝিকরা ইউনিয়নে অভিযান চালিয়ে সংশ্লিষ্ট কোনো দপ্তরের অনুমতি না থাকায় অবৈধভাবে দুটি পুকুর খনন বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এ সময় ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে ভেকুর চালকসহ ছয় জনকে ৫০ হাজার করে মোট তিন লাখ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে। এছাড়া অবৈধভাবে পুকুর খনন কাজে নিয়োজিত ড্রেজার (ভেকু) ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।

স্থানীয় লোকজন অভিযোগ করে জানান, ভ্রাম্যমান আদালতে দুটি পুকুর খনন বন্ধ করা হলেও ঝিকরা ইউনিয়নের মদাখালী বাজার সংলগ্ন ঝাড়গ্রামে কলেজ শিক্ষক শিবনাথ কুমার, শ্রীপুর ইউনিয়নের মজিদপুর গ্রামে এলাকার প্রভাবশালী সোহেল রানা, প্রভাস কুমার ও লিটন, হামিরকুৎসা ইউনিয়নের কালুপাড়া রায়াপুর গ্রামে নাইম ইসলাম, একই ইউনিয়নের রামগুয়া গ্রামে অ্যাড. উজ্জল হোসেন এবং গোন্দিপাড়া ইউনিয়নের বোয়ালিয়া মোড়ে আব্দুল জব্বার ওরুফে হুয়া মন্ত্রণালয়ের নির্দেশ উপেক্ষা করে অবৈধভাবে কৃষি জমিতে পুকুর খনন করে ট্রাক্টর-যোগে বিভিন্ন ইট-ভাটায় মাটি সরবরাহ করছেন।

এদিকে পুকুর খননের মাটি বিভিন্ন ইটভাটায় ট্রাক্টর দিয়ে সরবরাহ করায় পাকা সড়ক নষ্ট হয়ে যাচ্ছে বলে জানান উপজেলা সহকারি প্রকৌশলী (এলজিইডি) খলিলুর রহমান।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ