বাগাতিপাড়ায় বাল্য বিয়ের হাত থেকে রক্ষা পেল মৌসুমী খাতুন

আপডেট: সেপ্টেম্বর ৯, ২০১৭, ১২:২৯ পূর্বাহ্ণ

নাটোর অফিস


নাটোরের বাগাতিপাড়া উপজেলা প্রশাসনের হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ের হাত থেকে রক্ষা পেলো মৌসুমী খাতুন (১৬) নামের এক কিশোরী। গতকাল শুক্রবার দুপুরে উপজেলার বাজিতপুর পশ্চিমপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। মৌসুমী বাজিতপুর পশ্চিমপাড়ার কাউছার আলীর মেয়ে। পরে মেয়ের বয়স ১৮ বছর না হওয়া পর্যন্ত মেয়েকে কোথাও বিয়ে দেবে না মর্মে লিখিত মুচলেকা দেন মেয়ের বাবাসহ পরিবারের সদস্যরা।
বাগাতিপাড়া উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আহসান হাবিব জিতু ও বাগাতিপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুল ইসলাম জানান, উপজেলার বাজিতপুর পশ্চিমপাড়ায় একটি মেয়ের বাল্য বিয়ে হচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে মেয়ের বাবা কাউছার আলীর বাড়িতে পুলিশ পাঠানো হয়। পুলিশ সেখানে গিয়ে ঘটনার সত্যতা পাওয়ার পর মেয়ের বাবাকে সতর্ক করা হয় এবং তারসহ পরিবারের সকলের মুচলেকা নেওয়া হয়। মুচলেকায় লেখা হয় মেয়ের বয়স ১৮ বছর না হওয়া পর্যন্ত তাকে কোন ভাবেই এবং গোপনে কোন স্থানে নিয়ে গিয়ে বিয়ে দেয়া যাবে না। বর্তমানে মৌসুমী রহিমানপুর উচ্চবিদ্যালয়ে পড়ছে আগামীতে সে এসএসসি পরিক্ষা দেবে। তার পড়া বন্ধ করা যাবে না। কোন ভাবে যদি সেই নির্দেশ অমান্য করা হয় তাহলে আইনগত ব্যস্থা গ্রহণ করা হবে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ