বাঘায় ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টা মামলার প্রধান আসামি গ্রেফতার

আপডেট: এপ্রিল ১৬, ২০২১, ৯:০৯ অপরাহ্ণ

বাঘা প্রতিনিধি:


রাজশাহীর বাঘায় অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা মামলার প্রধান আসামি সৌরভ হোসেন নামের এক যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) রাতে নিজ বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সৌরভ উপজেলার বাজুবাঘা ইউনিয়নের আহমোদপুর গ্রামের জামাল উদ্দীনের ছেলে।
জানা যায়, বাঘা উপজেলার আহমোদপুর গ্রামের জামাল উদ্দীনের ছেলে সৌরভ হোসেন (১৭) অষ্টম শ্রেণির ছাত্রীকে রাস্তাঘাটে প্রায় অনৈতিক প্রস্তাব দেয়। তার প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় শনিবার (১০ এপ্রিল) রাতে ওই ছাত্রীর বাড়িতে যায় সৌরভ। তাকে বাড়িতে একা পেয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এ সময় ছাত্রীর চিৎকারে তার মা ও প্রতিবেশীরা ছুটে এসে সৌরভকে ঘরে আটক করে রাখা হয়। পরে সৌরভের বাবা-মা ও আত্মীয় স্বজন এসে উদ্ধার করে নিয়ে যায়। পরের দিন ১১ এপ্রিল এই ঘটনায় এলাকাতে একটি সালিশের আয়োজন করা হয়। এই সালিশ সৌরভ সহ তার পরিবার অমান্য করে। নিরুপায় হয়ে ১৫ এপ্রিল ওই ছাত্রীর বাবা বাদি হয়ে সৌরভ হোসেনকে প্রধান আসামি করে আরো ৪ জনের নাম উল্লেখ করে বাঘা থানায় মামলা দায়ের করে। এই মামলার প্রধান আসামি সৌরভ হোসেনকে বৃহস্পতিবার রাতে নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।
এ বিষয়ে বাঘা থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) আব্দুল বারী জানান, সৌরভ নামের এক আসামি গ্রেফতার করে করা হয়েছে। শুক্রবার (১৬ এপ্রিল) তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ