বিক্ষোভে রণক্ষেত্র আর্জেন্টিনার রাজধানী

আপডেট: জুন ১৩, ২০২৪, ২:৩৮ অপরাহ্ণ


সোনার দেশ ডেস্ক :


আর্জেন্টিনার প্রেসিডেন্ট হাভিয়ার মিলেইর প্রস্তাবিত অর্থনৈতিক সংস্কারের প্রতিবাদে উত্তাল হয়ে উঠেছে দেশটি। নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য ও বিক্ষোভকারীদের মধ্যে সংঘর্ষে বুধবার (১২ জুন) রাজধানী বুয়েন্স আয়ার্স রণক্ষেত্র হয়ে উঠে।

বৃহস্পতিবার (১৩ জুন) বিবিসির একটি প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বুধবার আর্জেন্টিনার পার্লামেন্টের উচ্চকক্ষ সিনেটে সংস্কার প্রস্তাব নিয়ে বিতর্ক চলার সময় বাইরে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় বিলটি বাতিলের দাবিতে কংগ্রেস ভবনের বাইরে দুটি গাড়িতে আগুন দেন বিক্ষোভকারীরা।

এরপর নিরাপত্তা বেষ্টনী পেরিয়ে কংগ্রেসের দিকে যাওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ বিক্ষোভকারীদের ওপর পিপার স্প্রে করলে তারা পুলিশের দিকে ঢিল ছুড়তে শুরু করে।

পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের এই সংঘর্ষে বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। স্থানীয় সংবাদমাধ্যমে এই বিক্ষোভকে ‘রণক্ষেত্রের’ সঙ্গে তুলনা করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, আর্জেন্টিনার প্রেসিডেন্ট হাভিয়ের মিলেই দেশটির অর্থনীতিকে পুনরুজ্জীবিত করার লক্ষ্যে যে সংস্কার প্যাকেজ প্রস্তাব করেছেন তার মধ্যে অর্থনৈতিক জরুরি অবস্থা ঘোষণা, পেনশন হ্রাস এবং শ্রম অধিকার হ্রাস করার বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। বামপন্থী রাজনৈতিক দল, শ্রমিক সংগঠন ও সামাজিক সংগঠনগুলো এই পদক্ষেপের বিরোধিতা করছে।

মিলেইয়ের প্রস্তাবিত এই সংস্কার প্যাকেজটি প্রাথমিকভাবে আর্জেন্টাইন সিনেটে ৩৬-৩৬ ভোটে ঝুলে ছিল। কিন্তু সিনেটের প্রধান ভাইস প্রেসিডেন্ট ভিক্টোরিয়া ভিলারুল প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দিলে সেটি প্রাথমিকভাবে গতকাল বুধবার পাস হয়। বিলটির চূড়ান্ত অনুমোদন বৃহস্পতিবার দেওয়া হবে। এই ধাপ শেষে প্রস্তাবটি সংসদের নিম্নকক্ষে যাবে এবং সেখানে আইনে পরিণত হবে।
তথ্যসূত্র: রাইজিংবিডি

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ