বিপিএলের পর শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ইনডোর

আপডেট: জানুয়ারি ৩, ২০২০, ১:১১ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে বেতন, ইনডোরের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধি, কেন্দ্রীয় চুক্তিতে খেলোয়াড় বাড়ানোসহ মোট ১৩ দাবি নিয়ে গত অক্টোবরে আন্দোলনে নেমেছিলেন সাকিব-মুশফিকরা। আন্দোলনের পর প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে বেতন-ভাতা কিছুটা বাড়িয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।বাকিগুলো ধীরে ধীরে পূরণ করা হবে বলে জানিয়েছিলেন বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান। বৃহস্পতিবার জানা গেলো বিপিএল শেষে চলতি মাসের শেষ সপ্তাহে মিরপুর ইনডোরের শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত (এসি) বসানোর কাজও শুরু হবে।
ইনডোরের তত্ত্বাবধায়ক মোর্শেদ চৌধুরী বাংলা ট্রিবিউনকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘গত সপ্তাহে প্রধান নির্বাহী ইনডোর ঘুরে গেছেন। বিপিএল শেষে কাজ শুরু হবে।’
ইনডোরে এসি না থাকায় অনুশীলনের সময় অল্পতেই হাঁপিয়ে যেতেন ক্রিকেটাররা। গত এক দশক ধরেই মিরপুরের ইনডোর স্টেডিয়ামে এসি বসানোর দাবি তুলে আসছিলেন সাকিবরা। গত অক্টোবরের আন্দোলনেও সাকিব বলেছিলেন, ‘বাংলাদেশের ক্রিকেটের এই পর্যায়ে এসে মিরপুরের এমন ইনডোর সত্যিই দুঃখজনক। গরমকালে ওখানে ১৫ মিনিটের বেশি ব্যাটিং করা যায় না, এত গরম। ১০ বছর ধরে বলার পরও মিরপুরের ইনডোরে এসি লাগেনি। আমরা যখন অন্য দেশের ইনডোরগুলোতে দেখি ঝকমকে লাইটের আলো, এসি লাগানো, আমাদের দুঃখ হয়।’
নানা নাটকীয়তার পর ২৩ অক্টোবর রাতে বিসিবি ক্রিকেটারদের দাবি মেনে নেওয়ার আশ্বাস দিলে ধর্মঘট প্রত্যাহার করেন সাকিব-তামিমরা। পরদিন সকালেই বোর্ড প্রধান অন্য পরিচালকদের নিয়ে ইনডোর ঘুরে দেখবেন। তখন তিনি জানিয়েছিলেন সুবিধাজনক সময়ে এসি বসানোর কাজ শুরু করবেন। সেই ‘সুবিধাজনক’ সময় অবশেষে আসছে! বিপিএল শেষে এসি বসানোর কাজ শুরু হচ্ছে।