বিসিবির নির্বাচক হওয়ার প্রস্তাবে সময় চাইলেন রাজ্জাক

আপডেট: মার্চ ২৩, ২০২০, ১২:৩৬ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


বাংলাদেশের সাবেক অধিনায়ক ও বর্তমান নির্বাচক হাবিবুল বাশারের প্রস্তাবে এখনই সাড়া দেননি আব্দুর রাজ্জাক। বাঁহাতি অভিজ্ঞ এই স্পিনার সময় নিয়েছেন ভাবার জন্য।
বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের তিন সদস্যের নির্বাচক প্যানেল। একজনকে অন্য দায়িত্বে সরিয়ে দেওয়ায় বেশ কিছুদিন ধরেই তৃতীয় নির্বাচকের পদটি ফাঁকা। এই জায়গায় অভিজ্ঞ স্পিনার আব্দুর রাজ্জাককে যোগ্য মনে হয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) কাছে। প্রস্তাবও দেওয়া হয়েছে বাঁহাতি স্পিনারকে। তবে তিনি এখনই সিদ্ধান্ত জানাচ্ছেন না।
জাতীয় দলের নির্বাচক হতে আপত্তি আছে, এমনও নয়। তবে খেলার মধ্যে থাকায় এখনই সিদ্ধান্তটা জানাচ্ছেন না আব্দুর রাজ্জাক। এখনও নিজেকে মাঠের খেলোয়াড় ভাবায় খেলার দিকেই সব মনোযোগ তার। আরও কিছুদিন খেলে যেতে চান বলে দ্য বিজনেস স্ট্যান্ডার্ডকে জানিয়েছেন রাজ্জাক।
এ কারণেই বাংলাদেশের সাবেক অধিনায়ক ও বর্তমান নির্বাচক হাবিবুল বাশারের প্রস্তাবে এখনই সাড়া দেননি রাজ্জাক। সময় নিয়েছেন ভাবার জন্য। জাতীয় দলের নির্বাচক হওয়ার বিষয়ে ভবিষ্যতে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলবেন বলে জানিয়েছেন ওয়ানডেতে বাংলাদেশের তৃতীয় সর্বোচ্চ উইকেট (২০৭ উইকেট) শিকারি রাজ্জাক।
জাতীয় দলের নির্বাচক হওয়ার প্রস্তাব পাওয়ার বিষয়ে আব্দুর রাজ্জাক দ্য বিজনেস স্ট্যান্ডার্ডকে বলেছেন, ‘প্রস্তাব বলতে কথা হয়েছিল একটু সুমন ভাইয়ের সাথে নির্বাচক হওয়ার প্রসঙ্গে। আমার কী পরিকল্পনা আছে, এটা নিয়ে উনারা জিজ্ঞাস করেছিল এই আর কি।’
মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের হয়ে এবারের বঙ্গবন্ধু ঢাকা প্রিমিয়ার ডিভিশন ক্রিকেট লিগে খেলছিলেন রাজ্জাক। করোনাভাইরাসের কারণে স্থগিত হয়ে যাওয়ায় আপাতত খেলা নেই। তবে একটি দলের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ থাকায় এখনই নির্বাচক হওয়ার বিষয়ে ভাবছেন না বাংলাদেশের হয়ে ১৩ টেস্ট, ১৫৩ ওয়ানডে ও ৩৪টি টি-টোয়েন্টি খেলা রাজ্জাক।
বাঁহাতি অভিজ্ঞ এই স্পিনার বলেন, আমি এখনও খেলার মধ্যে আছে, খেলছি। আমি এখনও প্রিমিয়ার লিগ খেলছি। তো আসলে এই মুহূর্তে আমার সিদ্ধান্তের কথা আমি জানাইনি। খেলার মধ্যে থাকার কারণেই মূলত আমি সিদ্ধান্ত জানাচ্ছি না। আমি বলেছি যে, এই ব্যাপারে আমি কথা বল উনাদের সাথে।’
হাবিবুল বাশার নির্বাচক হওয়ার জন্য রাজ্জাককে প্রস্তাব দিলেও এটা আনুষ্ঠানিক কোনো কিছু নয় বলে জানিয়েছেন বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান আকরাম খান। বাংলাদেশের সাবেক এই অধিনায়ক দ্য বিজনেস স্ট্যান্ডার্ডকে বলেন, ‘আমরা আনুষ্ঠানিকভাবে ওকে কোনো প্রস্তাব দেইনি। সুমন (হাবিবুল বাশার) হয়তো ওকে বলেছিল নির্বাচক হবি কিনা। তবে আনুষ্ঠানিক কিছু নয় এটা।’
নির্বাচক প্যানেলের তৃতীয় সদস্য হিসেবে রাজ্জাক ছাড়াও আরও দুটি নাম শোনা যাচ্ছে। সাবেক বাঁহাতি পেসার মঞ্জুরুল ইসলাম ও বাঁহাতি টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান শাহরিয়ার নাফিসকেও বিবেচনায় রাখা হয়েছে বলে জানা গেছে। পরিচ্ছন্ন ইমেজের বিবেচনায় এই তিন ক্রিকেটারকেই সেরা পছন্দ মনে হয়েছে বিসিবির কাছে। বর্তমানে জাতীয় দলের জন্য দুজন নির্বাচক আছেন। ২০১৬ সাল থেকে প্রধান নির্বাচকের দায়িত্ব পালন করে আসছেন সাবেক ক্রিকেটার মিনহাজুল আবেদীন নান্নু। নির্বাচকের দায়িত্বে আছেন হাবিবুল বাশার। দীর্ঘদিন ধরে জাতীয় দলের বাইরে থাকা আব্দুর রাজ্জাক ঘরোয়া ক্রিকেট দিয়ে ক্যারিয়ার চালিয়ে নিচ্ছেন। সর্বশেষ ২০১৪ সালে বাংলাদেশের হয়ে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি খেলেছেন তিনি। সর্বশেষ টেস্টও খেলেছেন দুই বছর আগে। চার বছর পর ২০১৮ সালে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট খেলেন বাঁহাতি এই স্পিনার।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ