ভারতের মণিপুরে পুলিশ সুপারের দফতরে আগুন, আক্রান্ত জেলা প্রশাসকের কার্যালয়! সংঘর্ষে নিহত ৩

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০২৪, ৫:০৩ অপরাহ্ণ


সোনার দেশ ডেস্ক :ইন্ডিয়ান রিজার্ভ ব্যাটেলিয়ন (আইআরবি)-এর চৌকির পরে এ বার সহিংস মণিপুরে হামলা জেলা পুলিশের সদর দপ্তরে। বৃহস্পতিবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) রাতে চূড়াচাঁদপুর জেলার পুলিশ সুপারের দপ্তরে হামলা চালায় সশস্ত্র দুষ্কৃতিকারীরা। অবাধে ভাঙচুরের পাশাপাশি দপ্তরের সামনে রাখা অনেক যানবাহনে অগ্নিসংযোগ করে তারা। হামলা হয় পাশে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়েও।

হামলার সময় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে তিন জন নিহত হয়েছে। আহত অন্তত ৩০ জন। প্রত্যক্ষদর্শীদের একাংশ জানান, দুষ্কৃতিকারীরা ছিলেন সংখ্যায় কয়েকশো। তাঁরা পুলিশ সুপারের দপ্তরে মোতায়েন র‌্যাফ জওয়ানদের ওপর হামলা চালালে এই সংঘর্ষ বাধে। তাৎপর্যপূর্ণ ভাবে, দুষ্কৃতিকারীদের চিহ্নিত করার জন্য হামলার ভিডিও ফুটেজ দেখতে গিয়ে মণিপুর পুলিশের এক জওয়ানকে শনাক্ত করা হয়েছে। সিয়ামলাল পাল নামে ওই জওয়ানও ছিলেন হামলাকারীদের পক্ষে। তাঁকে ইতোমধ্যেই সাসপেন্ড করা হয়েছে।

উল্লেখ, ২০২২ সালের ৩ মে জনজাতি ছাত্র সংগঠন ‘অল ট্রাইবাল স্টুডেন্টস ইউনিয়ন অফ মণিপুর’ (এটিএসইউএম)-এর কর্মসূচি ঘিরে অশান্তির সূত্রপাত হয় মণিপুরে। মণিপুর উচ্চ আদালর্ত মেইতেইদের তফসিলি জনজাতির মর্যাদা দেয়ার বিষয়টি নিয়ে রাজ্য সরকারকে বিবেচনা করার নির্দেশনা দেয়। এর পরেই জনজাতি সংগঠনগুলি তার বিরোধিতায় পথে নামেতথ্যসূত্র: আনন্দবাজার অনলাইন