ভারত-পাকিস্তান ম্যাচে যে ইতিহাসের হাতছানি

আপডেট: জুন ১৭, ২০১৭, ১২:৪৯ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে নিজেদের প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানের মুখোমুখি হয়েছিল ভারত। ৪ জুনের ওই ম্যাচটি রেকর্ড সংখ্যাক ২০১ মিলিয়ন নিবন্ধিত টেলিভিশন দর্শকদের কাছে পৌঁছেছে। ক্রিকেট যে ভারতীদের কাছে ধর্মের মতো সেটা আরও একবার প্রমান হয়েছে। তবে মর্যাদার ফাইনালে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ টেলিভিশন দর্শকের বিচারে নতুন ইতিহাস গড়বে বলে মনে করছে ভারতীয় গনমাধ্যমগুলো।
উপমহাদেশের দুই ক্রিকেট পরাশক্তি দল ভারত ও পাকিস্তান। দুই দেশের রাজনৈতিক বৈরি সম্পর্ক তাদের ক্রিকেটীয় লড়াইকে বাড়তি উত্তাপ দিয়েছে। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী এ লড়াই দেখতে বুদ হয়ে থাকে পুরো ক্রিকেট বিশ্ব। চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ফাইনালে লন্ডনের ওভালে নিজেদের সেরাটা জানান দিতে মুখোমুখি হবে দু’দল।
২০১৭ আইপিএলের ৬০টি ম্যাচ ৪১১ মিলিয়ন টেলিভিশন দর্শক দেখেছেন। কিন্তু চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ভারত-পাকিস্তানের মধ্যকার প্রথম ম্যাচটিই এর অর্ধেক দর্শক দেখেছেন। ভারতের টেলিভিশন ভিউয়ারশীপ মনিটরিং অ্যাজেন্সির (বিএআরসি) পর্যবেক্ষণের পর থেকে এটাই সবচেয়ে বেশি দর্শকদের দেখা ম্যাচ ছিল। তাই ফাইনালে যে সে রেকর্ড ছাড়িয়ে যাবে তা সহজেই অনুমেয়।
এ প্রসঙ্গে পাবলিক গ্রুপ মালিকানাধীন মিডিয়া জোটের সিইও বাসাব দত্ত চৌধুরি বলেন, ‘আমরা এই ম্যাচ (ফাইনাল) নিয়ে উচ্চ রেটিংয়ের প্রত্যাশায় রয়েছি। টেলিভিশন দর্শক কমে গেলে সেটা আমাদের বিস্মিত করবে। তবে প্রথম ম্যাচের ২০১ মিলিয়ন ভিউয়ারশীপ আমাদের আশা বাড়িয়ে দিয়েছে।’
এছাড়া স্টার ইন্ডিয়ার একজন মুখপাত্র এ ম্যাচ নিয়ে বলেন, ‘আইসিসি চ্যাম্পিয়নস ট্রফি ২০১৭ চমৎকার একটি ইভেন্ট। স্টার স্পোর্টস নেটওয়ার্কে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচটি টেলিভিশন দর্শকদের উপস্থিতির বিচারে নতুন রেকর্ড গড়েছে। এটি সবচেয়ে বেশি রেটের ওডিআই ম্যাচ হিসেবে ইতিহাস গড়েছে। এটা দেখিয়েছে যে ভারতীয় টেলিভিশন দর্শকদের কাছে ক্রিকেটের চেয়ে বড় কিছু নেই।’ রাইজিংবিডি

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ