ভুয়া পাসপোর্টসহ ভারতে রাজশাহীর যুবক গ্রেফতার

আপডেট: আগস্ট ২২, ২০১৭, ১:৩৪ পূর্বাহ্ণ

সোনার দেশ ডেস্ক


ভুয়া পাসপোর্ট ও কাগজপত্রসহ ভারতের উত্তরপ্রদেশের মিরুত থেকে বাংলাদেশি এক নাগরিককে গ্রেফতার করেছে রাজ্যের স্পেশাল টাস্ক ফোর্স (এসটিএফ)। রোববার মিরুতের ফালুদা এলকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।
সোমবার বার্তাসংস্থা এএনআই এক প্রতিবেদনে বলছে, গ্রেফতারকৃত ওই ব্যক্তির নাম আবু হান্না। তার পিতার নাম আব্দুল হান্না। বাংলাদেশের রাজশাহীর বাসিন্দা তিনি।
গ্রেফতারের সময় আবু হান্নার কাছ থেকে ভারতীয় ভুয়া পাসপোর্ট, আধার কার্ড, ভোটার আইডি, প্যান কার্ড, ভারত ও বাংলাদেশের দুটি সিম কার্ড এবং ২১০ রূপি উদ্ধার জব্দ করেছে এসটিএফ’র সদস্যরা।
উত্তরপ্রদেশে বসবাসরত অবৈধ অভিবাসী এবং অপরাধীদের ধরতে এসটিএফ’র সদস্যদের অভিযানে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আবু হান্নাকে গ্রেফতারের পরিকল্পনা করা নেয়া হয় বলে জানিয়েছে এসটিএফ।
এএনআই বলছে, কয়েক মাস আগে বাংলাদেশ সফর করেছেন আবু হান্না। পরে এক মাস বাংলাদেশে থাকার পর আবারো ভারতে ফিরে যান তিনি।
বাংলাদেশি এই নাগরিকের সম্পর্কে তথ্য সংগ্রহের পর এসটিএফ নিশ্চিত হয় যে, তিনি সেখানে বেশকিছু অবৈধ কাজকর্মের সঙ্গে জড়িত আছেন। পরে তাকে গ্রেফতার করা হয়।
জিজ্ঞাসাবাদে হান্না স্বীকার করেছেন, তিনি কয়েক বছর আগে বাংলাদেশ থেকে পালিয়ে আসেন ভারতে। অবৈধ উপায়ে ভারতে ঢুকে পড়েন তিনি। কলকাতা, মুজাফফরপুর, দিল্লি, লুধিয়ানাসহ বিভিন্ন শহরে কাজ করেছেন তিনি।
২০০৬ সালে মিরুতের এক নারীকে বিয়ে করেন তিনি। পরে সেখানে শ্বশুরবাড়ির লোকজনের সহায়তায় ভুয়া কাগজপত্র সংগ্রহ করেন তিনি। হান্নার স্ত্রী শাবানা সৌদি আরবে একটি বিউটি পার্লারে কাজ করেন। কয়েক মাসের মধ্যে তার ফেরার কথা রয়েছে। বাংলাদেশি হওয়ায় স্থানীয়রা তাকে হুমকি দিতে শুরু করায় অন্য শহরে বসবাসের পরিকল্পনা করেছিলেন বলে জানিয়েছেন হান্না।
সূত্র : এএনআই, জাগোনিউজ