ভোটযুদ্ধ হবে নৌকা-ট্রাক প্রতীকের সোমবার নওগাঁ-২ আসনের উপ-নির্বাচন

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২৪, ২:৪৫ অপরাহ্ণ


ইখতিয়ার উদ্দীন আজাদ, পত্নীতলা (নওগাঁ):সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) নওগাঁ-২ (পত্নীতলা-ধামইরহাট) আসনে স্থগিত হওয়া উপ-নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। বরেন্দ্র এলাকার কৃষি ভিত্তিক অর্থনৈতিক শক্তি ও ঐতিহাসিক পর্যটনখ্যাত জাতীয় সংসদের ৪৭ নম্বর নির্বাচনি এলাকা এটি। ইতোমধ্যে সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য সকল প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে ইসি।

এ আসনে চার প্রার্থী ভোটযুদ্ধে লড়ছেন। তাঁরা হলেন- আ’লীগের মনোনিত (নৌকা প্রতীক) সাবেক হুইপ শহীদুজ্জামান সরকার (বাবলু), আ’লীগের সাবেক সহ-সম্পাদক কেন্দ্রীয় উপ-কমিটি ও নওগাঁ জেলা আ’লীগের সদস্য ইঞ্জিনিয়ার ড. আখতারুল আলম স্বতন্ত্র প্রার্থী (ট্রাক প্রতীক), বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ড, কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মেহেদী মাহমুদ রেজা স্বতন্ত্র প্রার্থী (ঈগল প্রতীক) এবং জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও দলীয় মনোনিত প্রার্থী অ্যাড. তোফাজ্জল হোসেন (লাঙ্গল প্রতীক)।

নৌকা প্রতীকের প্রার্থী শহীদুজ্জামান সরকার বলেন, ‘টানা তৃতীয়বার আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় আছেন। এতে এলাকায় ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। জাতীয় নির্বাচনে আমি নির্বাচিত হলে অসমাপ্ত কাজগুলো সমাপ্তসহ চলমান আরো যুগপোযোগী উন্নয়ন করা হবে। তিনি জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদী।’
ট্রাক প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী ড. আখতারুল আলম বলেন, ‘অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন হলে তিনি শতভাগ বিশ্বাসী ট্রাক প্রতীকে দল-মত-নির্বিশেষে সব শ্রেণি-পেশার ভোটার আমাকে বিজয়ী করবেন। তিনি আরও বলেন, আমি যদি এ আসনে নির্বাচিত হই তাহলে প্রথম কাজ হবে অনিয়ম-দুর্নীতি মুক্ত করা।’

স্থানীয় আ’লীগের নেতা-কর্মি ও সাধারণ ভোটারদের সাথে কথা হলে তাঁরা জানায়, ‘চার প্রার্থী ভোটের মাঠে নামলেও মূলত ভোটযুদ্ধ হবে নৌকা-ট্রাক প্রতীকের মধ্যেই। সৎ, যোগ্য ও উন্নয়নের পক্ষে যারা কাজ করবে তাকেই নির্বাচিত করবেন জনগণ।’

নওগাঁ জেলা রিটার্নিং অফিসার ও জেলা প্রশাসক গোলাম মওলা বলেন, ‘নির্বাচন উপলক্ষে ১০-১৪ তারিখ পর্যন্ত ২ উপজেলায় ৪ প্লাটুন করে ৮ প্লাটুন বিজিবি কাজ করছে। দুই উপজেলার জন্য আরও ২ প্লাটুন করে ৪ প্লাটুন বিজিবি রিজার্ভ থাকছে। এছাড়াও র‌্যাব বাহিনীর টহল অব্যাহত রয়েছে।’
এ আসনে মোট ভোটার তিন লাখ ৫৫ হাজার ৫৬১ জন। এর মধ্যে নারী এক লাখ ৭৮ হাজার ১৯৪ জন এবং পুরুষ এক লাখ ৭৭ হাজার ৩৬৭ জন। মোট ভোট কেন্দ্র ১২৪ টি।

উল্লেখ্য, গত ২৯ ডিসেম্বর ২০২৩ বৈধ স্বতন্ত্র প্রার্থী আমিনুল হকের মৃত্যুতে এই আসনে ৭ জানুয়ারি ভোট বন্ধ ঘোষণা করে বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন (ইসি)। পরে ১২ ফেব্রয়ারি উপ-নির্বাচনের দিন ধার্য করে তফসিল ঘোষণা করে ইসি।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Exit mobile version