মসজিদে আজানের শব্দ, বক্তৃতা থামালেন অমিত শাহ

আপডেট: অক্টোবর ৬, ২০২২, ২:৫৭ অপরাহ্ণ


সোনার দেশ ডেস্ক :


মঞ্চে তখন বক্তব্য রাখছেন অমিত শাহ। পাশের মসজিদ থেকে ভেসে এল আজানের শব্দ। সঙ্গে সঙ্গে নিজের বক্তব্য থামিয়ে দিলেন তিনি। প্রায় ৫ মিনিট কোনও কথা বলেননি শাহ। আজান শেষের পর ফের বক্তব্য শুরু করেন তিনি। দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের এই আচরণের ভিডিও ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত দর্শকদের পাশাপাশি নেটিজেনরাও তাঁর প্রশংসায় পঞ্চমুখ।
কাশ্মীর সফরে গিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। বুধবার উত্তর কাশ্মীরের বারমুল্লা জেলার সওকত আলি স্টেডিয়ামে বক্তব্য রাখছিলেন তিনি। আচমকাই পাশের মসজিদ থেকে আজানের শব্দ ভেসে আসে।

শব্দ শুনে থমকে যান শাহ। উপস্থিত জনতার কাছে তিনি জানতে চান, মসজিদে কিছু হচ্ছে কি না। উত্তরে দর্শকরা জানান, আজান দেওয়া হচ্ছে। এরপরই নিজের বক্তৃতা থামিয়ে দেন তিনি। প্রায় ৫ মিনিট বক্তব্য় থামিয়ে ছিলেন শাহ। তারপর দর্শকদের অনুমতি নিয়ে ফের বলতে শুরু করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। দর্শকদের কাছে শাহ জানতে চান, ”এবার কি আমার শুরু করা উচিৎ?”

ইতিবাচক উত্তর পাওয়ার পর ফের শুরু করেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। তাঁর এহেন আচরণের প্রশংসা করেছেন উপস্থিত জনতা। উল্লেখ্য, ইতিপূর্বে আজান চলাকালীন নিজের বক্তৃতা থামিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও।

তিনদিনের কাশ্মীর সফরে আছেন শাহ। আসলে ৩৭০ ধারা বাতিলের পর প্রথমবার বিধানসভা নির্বাচন হতে চলেছে উপত্যকায়। ভোটের প্রস্তুতির জন্যই শাহ এখন কাশ্মীরে। বুধবার বারামুল্লার এক জনসভায় শাহ বলেন,”আমরা কাশ্মীর থেকে সন্ত্রাসকে পুরোপুরি উপড়ে ফেলতে চাই।

যাতে কাশ্মীর ভূস্বর্গ হয়েই থাকতে পারে। আমরা সন্ত্রাসবাদ সহ্য করব না। কাশ্মীরকে দেশের সবচেয়ে শান্তিপূর্ণ রাজ্য বানাবো।” শাহ এদিন দাবি করেছেন, ‘নয়ের দশক থেকে কাশ্মীরে শুধু সন্ত্রাসের বলি হয়েছেন ৪২০০ জন। সন্ত্রাসবাদে কারও ভাল হয় না।’
তথ্যসূত্র: সংবাদ প্রতিদিন